রবিবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৯, ০৯:০৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে শিক্ষক সংকট নিরসনে প্রবাসি সংগঠন নিয়োগ দিল ১২ প্যারা শিক্ষক যে ঘুষ খাবে সেই কেবল নয়, যে দেবে সেও অপরাধী: প্রধানমন্ত্রী বাস-অটোরিকশা সংঘর্ষে নিহত ৭ জগন্নাথপুরের পাটলীতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা জগন্নাথপুরে গাছ কাটার ঘটনায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা হচ্ছে জগন্নাথপুরে শিকল দিয়ে তিনদিন বেঁধে রাখার পর রিকশাচালকের মৃত্যু:হত্যা মামলা দায়ের ভারত বিনা যুদ্ধেই হারাচ্ছে জঙ্গি বিমান, নিহত হচ্ছেন পাইলট ২০০৫ সালের সিরিজ বোমা হামলার বিচার অবশ্যই হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী সাপের ছোবলে শিশুর মৃত‌্যু বণাঢ্য আয়োজনে জনপ্রিয় দৈনিক সুনামগঞ্জের খবরের বর্ষপূর্তি উদযাপন

চাহিদা মোতাবেক বরাদ্দ না পাওয়ায় জগন্নাথপুরে হাওরের ফসল রক্ষা বেড়িবাঁধ নির্মাণ কাজ শুরু হয়নি

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী, ২০১৭
  • ১৭ Time View

বিশেষ প্রতিনিধি::সুনামগঞ্জের অন্যতম বৃহৎ হাওর জগন্নাথপুর উপজেলার নলুয়ার হাওরে ফসল রক্ষা বেড়িবাঁধের কাজ শুরু না হওয়ায় কৃষকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন। অকাল বন্যা ও পাহাড়ি ঢলের হাত থেকে হাওরের একমাত্র বোরো ফসল রক্ষায় কৃষকরা এবার দুশ্চিন্তায় পড়েছেন। চাহিদা মোতাবেক বরাদ্দ না পাওয়ায় পাউবো বাঁধরক্ষায় উদাসীনভাবে কাজ করছে বলেও পিআইসি ও কৃষকরা অভিযোগ করেছেন। কৃষক ও পাউবো সূত্র জানায়, সুনামগঞ্জে গত ১৫ ডিসেম্বর থেকে হাওরের ফসল রক্ষাবেড়িবাঁধের কাজ শুরু হয়ে ২৮ ডিসেম্বর কাজ শেষ করার কথা থাকলেও জগন্নাথপুরে এখনো কাজ শুরু না হওয়ায় কৃষকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন।
সুনামগঞ্জ পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্র জানায়, জগন্নাথপুরসহ জেলার ৪০টি হাওরের ফসল রক্ষা বেড়িবাঁধের জন্য পাউবো বরাদ্দ পেয়েছে ৪৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা। প্রকল্প বাস্তবায়ন কমিটি পিআইসির মাধ্যমে ১৩ কোটি ৪০ লাখ এবং ঠিকাদারের মাধ্যমে আরও ৩০ কোটি টাকার কাজ হওয়ার কথা। জগন্নাথপুরে ২২ পিআইসির মাধ্যমে নলুয়ার হাওর,মইয়ার হাওর ও সুরাইয়া বিবিয়ানা প্রকল্পে কাজ হচ্ছে। তন্মেধ্যে শুধুমাত্র নলুয়ার হাওরে পিআইসির ১০ টি প্রকল্পের মাধ্যমে ৩৫ লাখ টাকা বরাদ্দ পাওয়া গেছে। গত বছর নলুয়ার হাওরে বরাদ্দ পাওয়া গিয়েছিল এক কোটি ১০ লাখ টাকা। অপরদিকে নলুয়ার হাওর ব্যতিত অপর অংশে রানীগঞ্জ এলাকায় বরাদ্দ পাওয়া গেছে এবার ৪৫ লাখ টাকা। গত বছর পাওয়া গিয়েছিল ৭০ লাখ টাকা।
নীতিমালা অনুযায়ী বাঁধের কাজ তদারকের জন্য উপজেলা পর্যাযে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে সভাপতি করে ৯ সদস্য কমিটি রয়েছে। এছাড়াও পিআইসি কমিটি গঠনে ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান অথবা মেম্বারকে সভাপতি স্থানীয় সংসদ সদস্যর একজন গন্যমান্য প্রতিনিধি ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যানের একজন আনসার প্রতিনিধি থাকবে। এছাড়াও একজন নারী প্রতিনিধি, একজন শিক্ষক প্রতিনিধি ও পাউবোর নির¦াহী প্রকৌশলীর একজন প্রতিনিধি থাকার বিধান রয়েছে। প্রতিটি পিআইসি ১৫ লাখ টাকার কাজ করতে পারবে। তবে কোন অনিয়ম হলে উপজেলা কমিটির সুপারিশে নির্বাহী প্রকৌশলী পিআইসির কাজ স্থগিত ও বাতিল করতে পারবে। প্রতি বছর কাজ শুরুর আগে উপজেলা কমিটির সভা আহ্বান করার কথা থাকলেও জগন্নাথপুরে এবার কোন সভা হয়নি। কাগজে কলমে সভা দেখিয়ে দায় এড়ানো হয়েছে বলে এমন অভিযোগ রয়েছে।

উপজলার প্রধান হাওর নলুয়া ব্যষ্টিত চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আরশ মিয়া জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে বলেন, এখনো বাঁধের কাজ শুরু হয়নি। পাউবো থেকে নির্দেশনা ও কার্যাদেশ পেতে বিলম্ব হওয়ায় পিআইসিগুলো কাজ শুরু করতে বিলম্ব করছে। তবে খুব শ্রীঘ্রই কাজ শুরু হবে বলে তিনি জানান।

রানীগঞ্জ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম রানা বলেন,আমরা প্রকল্প কমিটি গঠন করে দিয়েছি। কিন্তু কার্যাদেশ না পাওয়ায় কাজ করা যাচ্ছে না।

জগন্নাথপুর উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান মুক্তাদীর আহমদ মুক্তা জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে বলেন,জগন্নাথপুর প্রতি বছর ১৬ই ডিসেম্বর থেকে বাঁধের কাজ শুরু হয়। এবার এখনো কাজ শুরু না হওয়ায় কৃষকরা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন। আমরা উপজেলা পরিষদের মাসিক সভায় কৃষকদের উদ্বিগ্নের বিষয়টি আলোচনা করে দ্রুত কাজ শুরু করতে সংশ্লিষ্টদের তাগদা দিয়েছি।

নলুয়ার হাওর ফসলরক্ষা বেড়িবাঁধ উন্নয়ন কমিটির আহ্বায়ক সিদ্দিকুর রহমান জানান, হাওরের ফসল রক্ষায় বরাদ্দ কম আসায় পাউবো কর্মকর্তারা অসন্তোষ্ট। তাই তারা কাজ শুরু করতে বিলশ্ব করছেন। তিনি কৃষকদেরকে বাঁচাতে দ্রুত কাজ শুরু করার দাবি জানান। একথার সত্যতা মিলে পাউবোর মাঠ কর্মকর্তা এসও মোসাদ্দেক আহমদ কথায়। তিনি জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, এত কম বরাদ্দ দিয়ে কীভাবে হাওর রক্ষা করব,তা বুঝে উঠতে পারছি না। বরাদ্দ বাড়ানোর জন্য আবেদন করা হয়েছে বলে তিনি জানান। এছাড়াও জগন্নাথপুরের প্রতিটি পিআইসির কার্যাদেশ প্রস্তুুত রয়েছে। রবিবার থেকে কার্যাদেশ দিয়ে কাজ শুরু হবে বলে তিনি দাবি করেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24