সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর ছাত্রলীগের ‘হামলা’ আহত ২৫ অনেকেই গা ঢাকা দিয়েছে, অনেককেই নজরদাড়িতে রাখা হয়েছে: কাদের বিরিয়ানি খেলে শিক্ষকসহ ৪০ জন অসুস্থ আল কোরআন অনুসরণের আহ্বান রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের! জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ

জগন্নাথপুরের প্রবাসীর স্ত্রী খুন, নেপথ্যে দ্বিতীয় বিয়ে!

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ২০ জুলাই, ২০১৫
  • ৫২ Time View

স্টাফ রির্পোটার :: জগন্নাথপুরের যুক্তরাজ্য প্রবাসির স্ত্রী সুজিনা হত্যাকান্ডে জড়িত কাউকে পুলিশ গ্রেফতার করতে পারেনি। উদঘাটন করতে পারেননি হত্যার রহস্য। এ খুনের ঘটনায় দুই উপজেলাবাসীসহ যুক্তরাজ্য প্রবাসিরদের মধ্যে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। হত্যাকান্ডে জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবী জানিয়েছেন সকল শ্রেনী পেশার মানুষ। রোববার সন্ধ্যায় অতিথি সেজে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়ের নাটক সৃষ্টি করে একদল দূবৃর্ত্ত সুজিনা ও তার মায়ের উপর অতর্কিতভাবে হামলা চালায়। এ সময় ঘটনাস্থলই সুজিনা বেগম (১৯) এর মৃত্যু হয়।
পুলিশ ও এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, জগন্নাথপুর উপজেলার মীরপুর ইউনিয়নের শ্রীরামসী (সাতহাল) গ্রামের মৃত খলিলুর রহমানের পুত্র যুক্তরাজ্য প্রবাসি মুরাদ আহমদ সঙ্গে প্রায় ৬ মাস পূর্বে দ্বিতীয় বিয়ে করেন বিশ্বনাথ থানার দৌলতপুর পশ্চিম পাড়া গ্রামের আব্দুর রূপ এর কন্যা সুজিনার বেগম কে। এর পূর্বে তিনি শ্রীরামসী আব্দুল্লাহপুর গ্রামের মৃত সুন্দর আলীর কন্যা সাবিনা বেগম কে বিয়ে করেন। তাদের দাম্পত্তি জীবনে দুই পুত্র ও এক কন্যা সন্তান রয়েছে। ১ম পক্ষের স্ত্রীর সঙ্গে মুরাদ আহমদের পারিবারিক বিরোধ চলছিল। মুরাদ আহমদ প্রায় ৬ মাস পূর্বে দেশে এসে বিয়ে করেন সুজিনাকে।বিয়ের কিছুদিন পর মুরাদ আহমদ যুক্তরাজ্য চলে গেলে সুজিনা বেগম তার পিত্রালয়ে বসবাস করে আসছিলেন। রোববার সন্ধ্যা রাতে অজ্ঞাতনামা ৪জন লোক সুজিনার স্বামীর বাড়ির আত্মীয় পরিচয়ে দিয়ে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়ের জন্য তাদের বাড়িতে প্রবেশ করে। এসময় অতিথিদের হাতে ছিল একটি মিষ্টির বক্স। সুজিনার মা রেজিয়া বেগম এসময় তাদের পরিচয় জানতে চাইলে তারা জানান তারা (সুজিনা) স্বামীর পূর্ব পরিচিত। এরপর তারা ঘরে প্রবেশ করে এবং রেজিয়া বেগম তাদের জন্য নাস্তা তৈরি করছিলেন। ওই সময় দুস্কৃতিকারীরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে রেজিয়া বেগম ও তার মেয়ে সুজিনা বেগমকে কুপিয়ে আহত করে পালিয়ে যায়। এসময় সুজিনার ভাই জহিরউদ্দিন (১২) ঘর থেকে বের হয়ে চিৎকার শুরু করলে আশপাশ বাড়ির লোকজন ছুটে এসে তাদেরকে আহত অবস্থায় উদ্ধার সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পূ্র্বেই সুজিনা বেগম মারা যান। গুরুত্বর আহত সুজিনার মা রেজিয়া বেগম মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন। খবর পেয়ে ওই রাতে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে থানা পুলিশ।পুলিশ এখনো এ ঘটনার রহস্য উদঘাটন করকে পারেনি। তবে পুলিশ ধারনা করছে এ খুনের নেপথ্যে দ্বিতীয় বিয়ে হতে পারে।
বিশ্বনাথ থানার ওসি রফিকুল হোসেন জানান, এ ঘটনার ব্যাপারে তাৎক্ষণিক কিছু বলা যাচ্ছে না। তবে, যে প্রবাসীর সাথে সুজিনার বিয়ে হয়েছিল, ওই প্রবাসী যুক্তরাজ্যে আরেকটি বিয়ে করেছেন। এ নিয়ে দুই পরিবারের মধ্যে কিছুটা বিরোধ চলছিল। এ কারণে ঘটনাটি ঘটেছে কি না তারা তা খতিয়ে দেখছেন। এ ঘটনায় এখনো কোনো মামলা হয়নি কিংবা কোনো আসামিকেও আটক করা যায়নি বলে জানান ওসি রফিকুল।
এদিকে সুজিনা হত্যাকান্ডের ঘটনায় জগন্নাথপুর ও বিশ্বনাথ উপজেলাসহ যুক্তরাজ্য বসবাসরত বাঙ্গালীদের মধ্যে তোলপাড় বইছে। তারা এ ঘটনায় জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবী জানিয়েছেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24