বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০৬:১৩ পূর্বাহ্ন

তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কে এক মাস ধরে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন

তাহিরপুর প্রতিনিধি
  • Update Time : শুক্রবার, ২৬ জুলাই, ২০১৯
  • ১২৫ Time View

তাহিরপুর উপজেলায় পাহাড়ি ঢলে গুরুত্বপূর্ণ তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কের একাধিক স্থানে ভাঙনসহ আনোয়রপুর ব্রীজের সংযোগ সড়কটি ২০০ মিটার অংশ ভেঙে যায়। ভাঙা সড়ক মেরামত না করায় বিপাকে পড়েন তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কে চলাচলকারী জনগণ। সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন থাকার কারণে গত একমাস ধরে জেলা সদরের সাথে এ সড়ক দিয়ে সিএনজি, লেগুনাসহ বিভিন্ন ধরনের যানবাহন চলাচল একবারেই বন্ধ রয়েছে। যানবাহন বন্ধ থাকায় শিক্ষার্থী, চাকুরীজীবী, পর্যটক, ব্যবসায়ীসহ সর্বস্তরের মানুষ চরম দুর্ভোগে আছেন। রাস্তার মাঝে ভাঙা অংশে পায়ে হেঁটে চলাচল করতে হচ্ছে।
এদিকে পাহাড়ী ঢলের পানি কমলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ সড়কটি মেরামতে গাফিলতি, দায়িত্বহীনতার কারণে শুরু হয়নি তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কে সরাসরি যানচলাচল। ফলে ভোগান্তির শিকার যাত্রীদের মাঝে চরম ক্ষোভ বিরাজ করছে।
জানা যায়, গত ২৪ জুন থেকে পাহাড়ি ঢলে আনোয়ারপুর ব্রীজের পূর্ব পাশে ভেঙে গেছে প্রায় ২শ মিটার সড়ক। এরপর থেকে কোন ধরনের যানবাহন তাহিরপুর উপজেলা সদরে আসছে না আর উপজেলা সদর থেকে কোন যানবাহন যেতেও পারছে না।
গুরুত্বপূর্ণ এই সড়কটি দ্রুত মেরামত করার দাবি জানান তাহিরপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অমল কান্তি কর।
তিনি বলেন, সুনামগঞ্জ থেকে সিএনজি নিয়ে আনোয়ারপুর ভাঙা অংশে আটকে যাই। পরে পায়ে হেঁটে আরেকটি সিএনজি দিয়ে তাহিরপুর এসেছি। এই সড়কটি ভাঙা না থাকলে সহজে গাড়ি নিয়ে উপজেলা সদরে আসা যেত।
সিএনজি চালক উজান তাহিরপুর গ্রামের ইসলাম উদ্দিন জানান, বন্যার পর থেকে তাহিরপুর থেকে সুনামগঞ্জ যাত্রী পরিবহন বন্ধ রয়েছে। তাহিরপুর-আনোয়রপুর ব্রীজ পর্যন্ত যেতে পারি। ভাঙা অংশে একটু মেরামত করে দিলেই আমরা সিএনজি নিয়ে সুনামগঞ্জ জেলা শহরে যেতে পারতাম। কিন্তু পারছিনা। ফলে টাকা উপার্জন করতে না পারায় পরিবার পরিজন নিয়ে বড় কষ্টের মধ্যে দিনাতিপাত করছি।
ব্যবসায়ী মহসিন মিয়া বলেন, পণ্য পরিবহনের গাড়ি চলাচল না করতে পারায় শত শত ব্যবসায়ীরা পড়ছেন চরম বিপাকে। সড়ক যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন থাকার কারণে পণ্য পরিবহনের গাড়ি আসতে পারছে না তাহিরপুর উপজেলা সদরে। ফলে মালামাল আনতে গেলে খরচের পরিমাণ বেশী হয়। গুরুত্বপূর্ণ সড়কটি দায়িত্বহীনতার কারণেই উপজেলাবাসী বার বার দুর্ভোগে পড়েছেন।
তাহিরপুর উপজেলা প্রকৌশলী সাইদুল্লা মিয়া বলেন, আমার উধর্বতন কর্মকতাদের বিষয়টি জানিয়েছি। হালকা যানবাহন চলাচলের জন্য ঠিকাদারকে বলেছি জনস্বার্থে এবং জনদুর্ভোগ কমাতে এই সড়কে ভাঙা অংশে মেরামত করে দেন। এছাড়াও আমরা চেষ্টা করছি যত দ্রুত সম্ভব সড়কটি মেরামত করে যানবাহন চলাচলের উপযোগী করা হবে।
তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান করুণা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল বলেন, র্দীঘ দিন ধরেই উপজেলাবাসী তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কের আনোয়ারপুর ব্রীজ সংযোগ ভাঙা থাকার কারণে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24