সোমবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৯, ১০:২৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
কাশ্মীরে নির্বিচারে ধরপাকড় চলছে স্মৃতির রত্নায় ঈদ ভাবনা || আব্দুল মতিন জগন্নাথপুরে আগুনে পুড়ল দুইটি ঘর,ক্ষয়ক্ষতি ১০ লাখ জগন্নাথপুর আদর্শ মহিলা কলেজের উদ্যােগে দুই যুক্তরাজ্য প্রবাসিকে সম্মাননা প্রদান জগন্নাথপুরে শিক্ষক সংকট নিরসনে প্রবাসি সংগঠন নিয়োগ দিল ১২ প্যারা শিক্ষক যে ঘুষ খাবে সেই কেবল নয়, যে দেবে সেও অপরাধী: প্রধানমন্ত্রী বাস-অটোরিকশা সংঘর্ষে নিহত ৭ জগন্নাথপুরের পাটলীতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা জগন্নাথপুরে গাছ কাটার ঘটনায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা হচ্ছে জগন্নাথপুরে শিকল দিয়ে তিনদিন বেঁধে রাখার পর রিকশাচালকের মৃত্যু:হত্যা মামলা দায়ের

বৃটিশ বাংলাদেশী বিজনেস এ্যাওয়ার্ড সম্পন্ন

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, ১৩ মার্চ, ২০১৫
  • ৩৮ Time View

যুক্তরাজ্য থেকে আমিনুল হক ওয়েছ : যুক্তরাজ্যের বার্মিংহামে প্রথমবারের মতো অনুষ্টিত হয়ে গেলো বৃটিশ বাংলাদেশী বিজনেস এ্যওয়ার্ড। বুধবার সন্ধায় এক ঝাকঝমকপূর্ণ বর্ণিল অনুষ্টানের মাধ্যমে বৃটেনে বসবাসরত বাঙ্গালী ব্যবসায়ীদের স্বীকৃতি প্রদান করা হয় এই এ্যাওয়ার্ডের মাধ্যমে। অনুষ্টানে বৃটেনের অর্থনীতিতে ও বাঙ্গালী কমিউনিটিতে অবদান রাখার জন্য ২১টি ক্যাটাগরীতে মোট ২৮জন ব্যবসায়ী ও মিডিয়া ব্যক্তিত্ত্ব ও সমাজ সংগঠককে এ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। দেশ ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে অনুষ্টিত এ আড়ম্ভরপূর্ণ অনুষ্টানে বৃটেনের প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরনসহ বৃটেন ও বাংলাদেশ থেকে বেশকয়েকজন ভিআইপি অতিথি অংশ গ্রহণ করেন।
প্রধান মন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন তার বক্তব্যে বলেন, বৃটেনের অর্থনীতিতে বাংলাদেশী কমিউনিটির অবদান অনস্বীকার্য। এখানকার কয়েকলক্ষ বাংলাদেশী সরাসরী এ দেশের অর্থনীতিতে যোগান দিয়ে যাচ্ছেন। তিনি সম্প্রতি হালাল মাংস নিয়ে সৃস্ট জটিলতার কথা উল্ল্যেখ করে বলেন, বৃটেনে হালাল মাংস থাকবেই এতে কোন সন্দেহ নাই। তিনি বৃটিশ বাংলাদেশীদের আরো ভালো ভালো কাজের সাথে সম্পৃক্ত হবার আহবান জানিয়ে বলেন, বৃটেনে আগামী দিনে বৃটিশ বাংলাদেশীদের মধ্য থেকে প্রধান মন্ত্রী নির্বাচিত হবেন। এছাড়া সম্প্রতি বিশ্বকাপ ক্রিকেটে বাংলাদেশ দল ইংল্যান্ডকে পরাজিত করায় তাদের কোন দূ:খ নেই উল্ল্যেখ করে ক্যামেরন বাংলাদেশ ক্রিকেট টিমকে অভিনন্দন জানান। তিনি বৃটিশ বাংলাদেশী বিজনেস এ্যাওয়ার্ড এর মতো আয়োজন এদেশে বেড়ে উঠা আগামী প্রজন্মকে উৎসাহিত করবে বলে আশা প্রকাশ করেন।
অনুষ্টানে বক্তব্য রাখেন লর্ড অব উইম্বলডন তারিক আহমদ, বৃটেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাই কমিশনার আবুল হান্নান, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা ড; গওহর রিজভী, মিডিয়া ব্যক্তিত্ত , চ্যানেল আই’র পরিচালক শাইখ সিরাজ। অনুষ্টানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন দেশ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ও বৃটিশ বাংলাদেশী বিজনেস এ্যাওয়ার্ডের ফাউন্ডার মিসবাউর রহমান। দেশ ফাউন্ডেশনের ভাইস চেয়ারম্যান সৈয়দ নাসির ও এমডি শামীম চৌধুরীর সার্বিক তত্ত্বাবধানে অনুষ্টান পরিচালনা করেন বিবিসি’র মিডল্যান্ড টু ডে’র উপস্হাপক মাইকেল কলি ও অভিনেত্রী শমী দাশ।
অনুষ্টানে বেস্ট বিজনেস এন্টারপ্রেনার অব দ্য ইয়ার হিসেবে ফারজানা হোসেন নীলা, এন্টার প্রেনার অব দ্য ইয়ার ফরিদ নাবির, সুপারমার্কেট অব দ্য ইয়ার রফিক হায়দার, লিডার অব দ্য ইয়ার আহবাবুর রহমান মিরন, কমিউনিটি এক্সিলেন্স মাজেদুল চৌধুরী, লাইফ টাইম বিজনেস এচিবমেন্ট এ্যাওয়ার্ড আলজাজ্ব মনজুর আলী, ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড মনির আহমদ, মিডিয়া পার্সোনালিটি হাফিজ আলম বক্সসহ ২৮জনকে এ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। এছাড়া বাংলাদেশের কৃষি ও কৃষকদের উন্নয়নে বিশেষ অবদান রাখার জন্য মিডিয়া ব্যক্তিত্ব সাইখ সিরাজকে বিশেষ সম্মাননা প্রদান করা হয়। অনুষ্টানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্যে দেশ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মিসবাউর রাহমান মিসবাহ জানান, এদেশে বাঙ্গালীরা বিভিন্ন সেক্টরে তাদের মেধার বিকাশ ঘটিয়ে যাচ্ছেন নীরবে। কিন্তু একমাত্র রেষ্টুরেন্ট ব্যবসার সাথে জড়ীত যারা তাদেরকেই প্রতি বছর বৃটিশ কারী এ্যাওয়ার্ড বা শেফ এ্যাওয়ার্ডের মাধ্যমে স্বীকৃতি প্রদান করা হয়। বাস্তবিক অর্থে অন্যান্য ক্ষেত্রে সফল ব্যক্তিদের এধরনের স্বীকৃতি প্রদানের কোন ব্যবস্হা নেই। মূলত নীরবে কমিউনিটিতে অবদান রাখা এইসব ব্যক্তিদের স্বীকৃতি প্রদান ও তাদেরকে কমিউনিটির সাথে সম্পৃক্ত করতেই বৃটেনে প্রথমবারের মতো বৃটিশ বাংলাদেশী বিজনেস এ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়েছে। অনুষ্টানে প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরন উপস্হিত হওয়ায় তার প্রতি আন্তরিক কৃতঙ্গতা জানিয়ে মিসবাউর রহমান বলেন, প্রধান মন্ত্রীর উপস্হিতি এ্যাওয়ার্ড অনুষ্টানে ভিন্ন মাত্রা যোগ করেছে। এ এ্যাওয়ার্ড অনুষ্টান প্রতি বছর করা হবে বলেও তিনি আশা প্রকাশকরেন।
অনুষ্টানে আগত অতিথিদের মতে বৃটিশ কারী এওয়ার্ডের পর এটাই হতে যাচ্ছে বাঙ্গালীদের জন্য অন্যতম প্রেস্টিজিয়াস ইভেন্ট। বিশেষ করে যারা নিজ দক্ষতায় নিজ উদ্যোগে এদেশে প্রতিষ্টিত হয়েছেন এবং এদেশের মাটিতে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করে যাচ্ছেন তাদেরকে কমিউনিটির সাথে সম্পৃক্ত করতেই এই মহতী উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। মূলত ২১টি ক্যাটাগরীতে এ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। এর মধ্যে রয়েছে রাইজিং স্টার অব দ্য ইয়ার, লিডার অব দ্য ইয়ার, এন্টারপ্রেনার অব দ্য ইয়ার, ফিনান্সিয়াল সার্ভিস, বেস্ট ইনভেস্টর ইন বাংলাদেশ, মিডিয়া এন্ড আর্টস, প্রফেশনাল সার্ভিস এ্যায়ার্ড, এন্টারপ্রেনার এচিভমেন্ট, বেস্ট বিজনেস ম্যান এন্টারপ্রেনার, বেস্ট বিজনেস ওমেন এন্টারপ্রেনার, ক্যাটারিং সাপ্লাইয়ার অব ড্য ইয়ার, বেস্ট চ্যারিটী অর্গানাইজেশন, কমিউনিটি এক্সিলেন্স, আউটস্ট্যান্ডিং এচিভমেন্ট ইন ট্রাভেল এন্ড ট্যুরিজম সেক্টর, এক্সিলেন্ট এচিভমেন্ট ইন এডুকেশন, আউট স্ট্যান্ডিং এচিভমেন্ট ইন কারী ইন্ড্রাস্ট্রি, সুপার মার্কেট অব দ্য ইয়ার, ইন্টারন্যাশনাল ট্রেড, লাইফটাইম বিজনেস এচিভমেন্ট, পার্সোনালিটি অব দ্য ইয়ার, এক্সিলেন্স ইন কাস্টমার সার্ভিস।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24