শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৮:১৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে ব্রিটিশ বাংলা এডুকেশন ট্রাস্টের রিসোর্স সেন্টারের কাজ পরিদর্শনে ট্রাস্টের প্রতিনিধিদল জগন্নাথপুরে একদিকে ১১ জন ডাক্তারের যোগদান জগন্নাথপুরে বেড়িবাঁধের ৩০ প্রকল্প অনুমোদন কাল কাজ শুরু হতে পারে শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবসে জগন্নাথপুরে প্রশাসনের উদ্যোগে শ্রদ্ধা নিবেদন ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে আ.লীগের উদ‌্যোগে শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবসে আলোচনাসভা ও শ্রদ্ধা নিবেদন দিরাইয়ে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মানববন্ধন মুসলিমবিদ্বেষী আইনের বিরুদ্ধে ভারতজুড়ে বিক্ষোভ আমি স্বাধীনতা বিরুধী পরিবারের সন্তান নই- চেয়ারম্যান আব্দুল হাশিম জগন্নাথপুরে বাংলা মিরর সম্পাদক আব্দুল করিম গনি সংবর্ধিত জগন্নাথপুরে তিনদিন ব্যাপি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মেলার উদ্বোধন

গাড়ি আটকিয়ে শিক্ষার্থীদের গায়ে পোড়া মবিল দিয়েছে শ্রমিকরা

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৮ অক্টোবর, ২০১৮
  • ৮৫ Time View

জগন্নাথপুর২৪ ডেস্ক:: পরিবহন শ্রমিকদের ডাকা কর্মবিরতির মধ্যে পড়ে লাঞ্ছনার শিকার হতে হয়েছে নারায়ণগঞ্জে একটি কলেজের শিক্ষার্থীদের। রোববার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ সরকারি মহিলা কলেজের ছাত্রীদের বহন করা একটি বাসে হামলার পর ছাত্রী ও বাস চালকের মুখে ও কাপড়ে কালি লাগিয়ে দেয় পরিবহন শ্রমিকরা।

ওই ঘটনার কিছু ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে। ছবি শেয়ার করে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন অনেকেই। ঘটনার নিন্দা জানিয়ে তারা দায়ীদের শাস্তিও দাবি করেন।সড়ক পরিবহন আইনের কয়েকটি ধারা সংশোধনসহ ৮ দফা দাবিতে সকাল ছয়টা থেকে সারা দেশে ৪৮ ঘণ্টার কর্মবিরতি ও ‘ধর্মঘট’ শুরু করে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন। এ কর্মসূচিতে দুর্ভোগে পড়েছেন রাজধানীসহ সারাদেশের মানুষ।

নারায়ণগঞ্জের ওই ঘটনা ছাড়াও আরও কয়েকটি স্থানে প্রাইভেটকার ও মোটরসাইকেল চালকদের মুখেও কালি লেপনের ছবি এসেছে ফেসবুকে। পোড়া ইঞ্জিন ওয়েল, কালো রঙ ও আলকাতরা মাখিয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। রোগী বহনকারী অ্যাম্বুলেন্সকেও এমন ঘটনার মুখোমুখি হতে হয় বলে জানা গেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, দুপুর ১২টার দিকে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ লিংক রোডের সাইনবোর্ড এলাকায় একটি পাম্পের কাছে আন্দোলনকারীরা বাসটি থামিয়ে দেন।এসময় চালককে মারধর করে ও তার মুখে শরীরে কালি দেওয়া হয়। প্রতিবাদ করার সময় কয়েকজন ছাত্রীর মুখে ও কাপড়ে কালি লেপে দেন শ্রমিকরা। পরে বাসের কয়েকটি গ্লাস ভাঙচুর করে বাস থেকে সবাইকে নামিয়ে দেওয়া হয়।

ওমর ফারুক নামের এক ব্যক্তি ফেসবুকে লিখেছেন, ‘এটা খুব দুর্ভাগ্যজনক ব্যাপার। শিক্ষার্থীদের সঙ্গে এমন অনাকাঙিক্ষত ঘটনার বিচার হওয়া উচিত।’কালি লাগিয়ে দেওয়ার এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়ে সাজ্জাদ করিম লিখেছেন, ‘দাবি আদায়ে আরও বিকল্প পথ হতে পারে। কিন্তু এমন ঘটনা মেনে নেওয়া যায় না।’

সুত্র আমার সংবাদ

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24