বঙ্গবন্ধু সুনামগঞ্জ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল অনুমোদন হওয়ায় জেলাবাসীর বর্ণাঢ্য আনন্দ শোভাযাত্রা


সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি :
ভাটির জনপদ সুনামগঞ্জবাসীর দীর্ঘদিনের দাবি ‘বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল সুনামগঞ্জ’ মন্ত্রীসভায় অনুমোদন হওয়ায় জেলা শহরে জেলাবাসীর আনন্দ শোভাযাত্রা সম্পন্ন হয়েছে।
আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে থেকে সুনামগঞ্জ জেলাবাসীর ব্যানারে বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের অংশগ্রহনে একটি শোভাযাত্রা বের হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন করে কেন্দ্রিয় শহিদ মিনারে গিয়ে এক সমাবেশে মিলিত হয়।
আনন্দ শোভাযাত্রায় অংশ নেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এমপি, জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুল আহাদ, সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত, পুলিশ সুপার মো. বরকুতুল্লাহ খান, জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি অ্যাড. খায়রুল কবির রুমেন, জেলা আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক হায়দার চৌধুরী লিটন, সাংগঠনিক সম্পাদক সিরাজুর রহমান সিরাজ, জেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. শামছুল আবেদীন, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. নজরুল ইসলাম শেফু, শিল্পকলা একাডেমীর সহ-সভাপতি প্রদীপ পাল নিতাই, জেলা পরিষদ সদস্য সৈয়দ তারেক হাসান দাউদ,দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সভাপতি বোরহান উদ্দিন দোলন, সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি মণীষ কান্তি দে মিন্টু ও বিন্দু তালুকদারসহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের লোকজন।
উল্লেখ্য গত ৪ নভেম্বর একনেকে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার মদনপুর এলাকায় প্রায় ১২ শত কোটি টাকা ব্যয়ে ‘সুনামগঞ্জ বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল’ নির্মানের অনুমোদন হয়। এতে সুনামগঞ্জ হাওর এলাকার সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে আনন্দ উচ্চাসের সৃষ্টি হয়।

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» সুনামগঞ্জে বিএনপি নেতাকর্মীর গণপদত্যাগ

» জগন্নাথপুরে অতিরিক্ত মূল্যে বোরো ধানের বীজ বিক্রির অভিযোগ

» সুনামগঞ্জ-৩ আসনে মনোনয়ন সংগ্রহ করলেন বিএনপির তিন নেতা

» সিলেটে বাড়ছে যানবাহনের চাপ, বাড়ছে না সড়ক

» জগন্নাথপুরে মাসিক আইনশৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত

» অটোরিকশার চাকায় ওড়না পেচিয়ে নারীর মৃত্যু

» ঐক্য ধরে রেখে সামনে এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান খালেদা জিয়ার

» দ্বিতীয় দিন শেষে চালকের আসনে বাংলাদেশ

» জগন্নাথপুরে ডাকাতি মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামীসহ গ্রেফতার-৬

» স্পিডবোটডুবির ঘটনায় নবদম্পতিসহ তিন যাত্রীর লাশ উদ্ধার

সম্পাদক ॥ অমিত দেব, মোবাইল ॥ ০১৭১৬-৪৬৫৫৩৫,
ই-মেইল ॥ amit.prothomalo@gmail.com
বার্তা সম্পাদক ॥ আলী আহমদ, মোবাইল ॥ ০১৭১৮-২২২৯৭৫,
ই-মেইল ॥ ali.jagannathpur@gmail.com,
ওয়েবসাইট ॥ www.jagannathpur24.com, ই-মেইল ॥ jpur24@gmail.com

Desing & Developed BY PopularITLtd.Com
,

বঙ্গবন্ধু সুনামগঞ্জ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল অনুমোদন হওয়ায় জেলাবাসীর বর্ণাঢ্য আনন্দ শোভাযাত্রা


সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি :
ভাটির জনপদ সুনামগঞ্জবাসীর দীর্ঘদিনের দাবি ‘বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল সুনামগঞ্জ’ মন্ত্রীসভায় অনুমোদন হওয়ায় জেলা শহরে জেলাবাসীর আনন্দ শোভাযাত্রা সম্পন্ন হয়েছে।
আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে থেকে সুনামগঞ্জ জেলাবাসীর ব্যানারে বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক ও রাজনৈতিক সংগঠনের অংশগ্রহনে একটি শোভাযাত্রা বের হয়ে শহরের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিন করে কেন্দ্রিয় শহিদ মিনারে গিয়ে এক সমাবেশে মিলিত হয়।
আনন্দ শোভাযাত্রায় অংশ নেন অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এমপি, জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুল আহাদ, সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত, পুলিশ সুপার মো. বরকুতুল্লাহ খান, জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি অ্যাড. খায়রুল কবির রুমেন, জেলা আ.লীগের যুগ্ম সম্পাদক হায়দার চৌধুরী লিটন, সাংগঠনিক সম্পাদক সিরাজুর রহমান সিরাজ, জেলা শিল্পকলা একাডেমির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. শামছুল আবেদীন, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. নজরুল ইসলাম শেফু, শিল্পকলা একাডেমীর সহ-সভাপতি প্রদীপ পাল নিতাই, জেলা পরিষদ সদস্য সৈয়দ তারেক হাসান দাউদ,দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সভাপতি বোরহান উদ্দিন দোলন, সরকারি কলেজের সাবেক ভিপি মণীষ কান্তি দে মিন্টু ও বিন্দু তালুকদারসহ বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের লোকজন।
উল্লেখ্য গত ৪ নভেম্বর একনেকে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার মদনপুর এলাকায় প্রায় ১২ শত কোটি টাকা ব্যয়ে ‘সুনামগঞ্জ বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল’ নির্মানের অনুমোদন হয়। এতে সুনামগঞ্জ হাওর এলাকার সর্বস্তরের মানুষের মধ্যে আনন্দ উচ্চাসের সৃষ্টি হয়।

© 2018 জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃক সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত

সম্পাদক ॥ অমিত দেব, মোবাইল ॥ ০১৭১৬-৪৬৫৫৩৫,
ই-মেইল ॥ amit.prothomalo@gmail.com
বার্তা সম্পাদক ॥ আলী আহমদ, মোবাইল ॥ ০১৭১৮-২২২৯৭৫,
ই-মেইল ॥ ali.jagannathpur@gmail.com,
ওয়েবসাইট ॥ www.jagannathpur24.com, ই-মেইল ॥ jpur24@gmail.com

error: ভাই, কপি করা বন্ধ আছে।