মঙ্গলবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:২০ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
পরিকল্পনামন্ত্রীর ডিও লেটারে জগন্নাথপুরে ২৩টি স: প্রা: স্কুলে নতুন ভবন নির্মাণ হচ্ছে সুনামগঞ্জে স্বামীর মৃত্যুর খবর পেয়ে স্ত্রীর আত্মহত্যা জগন্নাথপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে মিড ডে মিল চালু জগন্নাথপুরে প্রকাশ্য দিবালোকে গ্রামীণ ফোনের ৫ লাখ টাকা ছিনতাই, জনতার ধাওয়ায় বাইকসহ আটক ১ জগন্নাথপুরে সড়ক রক্ষায় ১০ টন ওজনের অধিক যান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীদের মধ্যে প্রতিক বরাদ্দ, আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণা প্রার্থীরা গরুর মাংস বিক্রি: ভারতে খ্রিস্টান যুবককে পিটিয়ে হত্যা জগন্নাথপুরের ব‌্যবসায়ী ফেরদৌস মিয়া খুনের ঘটনায় সানিকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড সুনামগঞ্জে হত্যা মামলায় একজনের মৃত্যুদণ্ড, তিনজনের যাবজ্জীবন ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর ছাত্রলীগের ‘হামলা’ আহত ২৫

সুনামগঞ্জে কৃষক নেতা আজাদের খুনের ঘটনায় ভারাটে খুলনাসহ গ্রেফতার ২

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ২৮ মার্চ, ২০১৯
  • ৮০ Time View

জগন্নাথপুর২৪ ডেস্ক ::সুনামগঞ্জে হাওর আন্দোলনের নেতা আজাদ মিয়া খুনের ঘটনায় শ্রাবণ নামের ভাড়াটে খুনী ও তার বড় ভাইকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার দুপুরে পুলিশ সংবাদ সম্মেলন করে জানিয়েছে, আটককৃত শ্রাবণ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ১০ হাজার টাকার বিনিময়ে আজাদ মিয়াকে খুন করেছে বলে স্বীকার করেছে। বুধবার ভোরে কোরবাননগর ইউনিয়নের ব্রাহ্মণগাঁও গ্রামের শশুরবাড়ি থেকে পুলিশ শ্রাবণকে আটক করে।
বুধবার দুপুরে সংবাদ সম্মেলন করে পুলিশ সুপার মো. বরকতুল্লাহ খান জানান, মাত্র ১০ হাজার টাকার বিনিময়ে ভাড়াটে খুনি হিসেবে কাজ করে শ্রাবণ মিয়া।
পুলিশ সুপার জানিয়েছেন, কালো গেঞ্জি পড়ে পৌঁনে দুই ফুট লোহার পাইপ দিয়ে আজাদের মাথায় আঘাত করে শ্রাবণ। শ্রাবণের দেওয়া স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে তার বসতঘর থেকে হত্যাকাÐে ব্যবহৃত লোহার পাইপ, গুডিগেঞ্জি ও জিন্সের প্যান্টসহ বিভিন্ন আলামত উদ্ধার করে পুলিশ।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন- পদোন্নতিপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান, ওসি মো. শহিদুল্লাহ্, ওসি তদন্ত মঞ্জুর মুর্শেদ, ডিবি’র ওসি মুক্তাদীর আহমদ প্রমুখ।
সুনামগঞ্জ সদর থানার ওসি মো. শহিদুল্লাহ্ জানান, এ ঘটনায় প্রথমে মোবাইল ট্যাকিংয়ের মাধ্যমে শ্রাবণের বড় ভাই মাহবুবুর রহমান মাহবুবকে তার দক্ষিণ আরপিন নগরের বাড়ি থেকে আটক করা হয়।
আজাদের খুনের ঘটনায় আটক উকিল আলী’র সঙ্গে ঘটনার আগের দিন বহুবার শ্রাবণের বড় ভাই মাহবুবুর রহমান মাহবুবের মুঠোফোনে কথা হয়েছে। এই বিষয়টি সন্দেহজনক মনে করে মাহবুবকে আটক করা হয়।
মাহবুব পুলিশকে জানায়, ১০ মাস আগে নারী ও শিশু নির্যাতন মামলা দায়েরের ঘটনা নিয়ে উকিল আলী ও আজাদ মিয়ার মধ্যে মন কষাকষি হয়। এই শত্রæতার জের ধরে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের কয়েকদিন আগে আজাদ মিয়ার লোকজন উকিল আলী’র ছেলে পাভেল ও রিপন নামের আরেক যুবককে মারপিট করে। উকিল আলী ঘটনার প্রতিশোধ নিতে প্রথমে পাভেল আহমেদের সঙ্গে কথা বলে। পাভেল এ বিষয়ে রাজি না হওয়ায় তার ছোট ভাই শ্রাবণকে ১০ হাজার টাকায় ভাড়া করে উকিল আলী, পাভেল ও রিপন।
ওসি মো শহিদুল্লাহ্ জানান, শ্রাবণকে আটক করার পর তার স্বীকারোক্তি মোতাবেক লোহার যে পাইপ দিয়ে সে আক্রমণ করেছে সেটিসহ অন্যান্য আলামত উদ্ধার করা হয়। শ্রাবণ জানিয়েছে, ঘটনার সময় সিএনজিতে করে আজাদ মিয়ার পেছনে পেছনে আরও ২-৩ জন গিয়েছিল বলেও জানিয়েছে শ্রাবণ।
কৃষক নেতা আজাদ মিয়া গত ১৪ মার্চ বৃহস্পতিবার রাতে সুনামগঞ্জ শহর থেকে বড়পাড়ায় তাঁর নিজ বাসায় ফেরার সময় প্রাইমারী ট্রেনিং ইনস্টিটিউটের সামনে দুর্বৃত্তের আক্রমণে মাথায় আঘাত পান। প্রথমে তাঁকে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে এবং অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় সঙ্গে সঙ্গেই সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। তিন দিন অজ্ঞান অবস্থায় মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে ১৭ মার্চ রাত সাড়ে সাতটায় ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যান তিনি।
আজাদ মিয়া সুনামগঞ্জ পৌর শহরের বড়পাড়ায় পরিবার নিয়ে বসবাস করতেন। তাঁর গ্রামের বাড়ি সদর উপজেলার মোল্লাপাড়া ইউনিয়নের জালালপুর গ্রামে। তিনি মোল্লাপাড়া ইউনিয়ন বিএনপির আহবায়কও ছিলেন।
ঘটনার পরদিন (১৮ মার্চ) ৪ জনকে আসামী করে তাঁর ভাই আজিজ মিয়া বাদী হয়ে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার আসামী করা হয় মোল্লাপাড়া ইউনিয়নের জালালপুর গ্রামের উকিল আলী, তার ছেলে পাভেল মিয়া, মোল্লাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান স্থানীয় আকিলপুর গ্রামের বাসিন্দা নুরুল হক ও রিপন আলীকে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24