শনিবার, ২৪ অগাস্ট ২০১৯, ০৫:৫৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
২১ আগস্টের মাস্টারমাইন্ডদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করতে আপিল করা হবে: ওবায়দুল কাদের ধর্মীয় শিক্ষার প্রয়োজন চিরদিন ৭১’র বয়স ৫ মাস,তবুও মানবতাবিরোধী অপরাধে সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা,প্রত্যাহারের দাবী ঠিকাদারের দায়িত্বহীনতায় জগন্নাথপুর-বেগমপুর সড়কে অসহনীয় দুর্ভোগ জগন্নাথপুরের টমটম চালকের হত্যাকাণ্ড উন্মোচিত,ঘাতকের স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি প্রদান জগন্নাথপুরে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনায় জন্মাষ্টমী উদযাপন জগন্নাথপুরে সরকারি গাছ কাটায় সেই যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের ভারত-পাকিস্তান গুলি বিনিময় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী পরীক্ষা ১৭ নভেম্বর টমটম গাড়ীর জন্য জগন্নাথপুরের এক চালককে রশিদপুরে নিয়ে খুন,গ্রেফতার-১

জামালগঞ্জে দুই বিদ্যালয়ের দরজা বন্ধ পেলেন ইউএনও

Reporter Name
  • Update Time : রবিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯
  • ৩৯ Time View

স্টাফ রিপোর্টার::
গত বুধবার ও শনিবার দুপুরে হালির হাওরের বোরো ফসলরক্ষা বাঁধ নির্মাণ কাজ পরিদর্শন করতে বের হয়েছিলেন জামালগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শামীম আল ইমরান।
হাওরের বাঁধ দেখতে পথে বুধবার বিকাল সাড়ে ৩ টায় জামালগঞ্জ উপজেলার বেহেলী ইউনিয়নের হরিপুর বিদ্যালয়ের পাঠদান দেখতে বিদ্যালয়ে যান। এসময় তিনি বিদ্যালয়ের দরজা তালাবদ্ধ দেখতে পান। একইভাবে গতকাল শনিবার বিকাল সাড়ে ৩ টায় একই ইউনিয়নের রাধানগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাঠদান দেখতে গেলে
দেখতে পান বিদ্যালয়ের দরজা বন্ধ।
এসময় উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিদ্যালয়ের আশপাশের ছাত্র-ছাত্রীদের অভিভাবকদের সাথে বিদ্যালয় ও শিক্ষকদের বিষয়ে জানতে চান। দুইটি গ্রামের লোকজন উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে জানান, বিদ্যালয় দুইটির শিক্ষকগণ প্রায়ই বিদ্যালয়ে অনুপস্থিত থাকেন। এতে বিদ্যালয়ের লেখপড়ার ব্যাহত হচ্ছে ও শিক্ষার মান দিন দিন নি¤œগামী হচ্ছে।
পরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শামীম আল ইমরান ওই দুইটি বিদ্যালয় বন্ধ থাকার বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিসারকে পত্র লেখেন এবং পত্রের অনুলিপি জেলা প্রশাসক ও জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে দেন।
জামালগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শামীম আল ইমরান বলেন,‘ বুধবার ও শনিবার হাওরের ফসলরক্ষা বাঁধ দেখতে গিয়েছিলাম। পথে দুইটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিদর্শন করতে গিয়ে দেখি বিদ্যালয়ের দরজা তালাবদ্ধ। এসমং গ্রামের ছাত্র অভিভাবকরা জানিয়েছেন এই দুইটি বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা প্রায়ই অনুপস্থিত থাকেন। যার কারণে বিদ্যালয় বন্ধ থাকে। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিসারকে চিঠি দিয়েছি। চিঠির অনুলিপি জেলা প্রশাসক ও জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারকে দিয়েছি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24