রবিবার, ২৫ অগাস্ট ২০১৯, ০৬:২৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে নৌকাবাইচ:এবার সোনার নৌকা,সোনার বৈঠা জিতল কুতুব উদ্দিন তরী জগন্নাথপুরে সড়ক সংস্কার-অবৈধ যান অপসারণের দাবীতে আন্দোলনের হুঁশিয়ারি মালিক,শ্রমিক নেতারদের জগন্নাথপুরে এনজিও সংস্থা আশা’র উদ্যোগে তিনদিন ব্যাপি ফিজিওথেরাপী চিকিৎসা ক্যাম্প শুরু জগন্নাথপুরে মারামারি মামলাসহ বিভিন্ন ওয়ারেন্টের ১১ আসামী গ্রেফতার জগন্নাথপুরে পুকুরের পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু জগন্নাথপুরে ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতনতামুলক সভা অনুষ্ঠিত ২১ আগস্টের মাস্টারমাইন্ডদের সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করতে আপিল করা হবে: ওবায়দুল কাদের ধর্মীয় শিক্ষার প্রয়োজন চিরদিন ৭১’র বয়স ৫ মাস,তবুও মানবতাবিরোধী অপরাধে সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা,প্রত্যাহারের দাবী ঠিকাদারের দায়িত্বহীনতায় জগন্নাথপুর-বেগমপুর সড়কে অসহনীয় দুর্ভোগ

ভারতে ৪৮ ঘণ্টায় ৩০ শিশুর মৃত্যু

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ১২ আগস্ট, ২০১৭
  • ২০ Time View
উত্তরপ্রদেশে ৪৮ ঘণ্টায় ৩০ শিশুর মৃত্যু

জগন্নাথপুরে ভারতের উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের গোরখপুর জেলার একটি সরকারি হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় মাত্র ৪৮ ঘণ্টায় ৩০ শিশুর মৃত্যু হয়েছে। মারা যাওয়া বেশির ভাগ শিশুই নবজাতক ছিল।

ঠিক সময়ে বকেয়া বিল ৬০ লাখ রুপি পরিশোধ না করায় হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ করে দিয়েছিল সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান। ভারতের উত্তরপ্রদেশের গোরক্ষপুরে বাবা রাঘবদাস মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মর্মান্তিক এ ঘটনা ঘটে।
দেশটির বিভিন্ন গণমাধ্যম সূত্রে এসব খবর জানা গেছে। তবে রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী সিদ্ধার্থনাথ সিং অক্সিজেনের অভাবে শিশুদের মৃত্যুর খবর নাকচ করে দিয়েছেন।

শুক্রবার তিনি জানান, তদন্ত প্রতিবেদনের পর প্রকৃত ঘটনা বেরিয়ে আসবে।

আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়, গুরুতর অসুস্থ ওই ৩০ শিশুকে হাসপাতালে ভর্তি করানোর পর অক্সিজেন সাপোর্টে রাখা হয়েছিল।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, যে প্রতিষ্ঠান অক্সিজেন সরবরাহ করে, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঠিক সময়ে তাদের বকেয়া বিল পরিশোধ করেনি। ফলে হাসপাতালে অক্সিজেন সরবরাহ করতে দেরি করছিল প্রতিষ্ঠানটি। আর তারই পরিণতিতে মৃত্যু হয় পুরোপুরি অক্সিজেন সাপোর্টে থাকা ৩০ শিশুর।

তবে এমন অভিযোগ অস্বীকার করে গোরক্ষপুরের জেলাশাসক রাজীব রাওতেলা এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, বুধবার থেকে বৃহস্পতিবার রাতের মধ্যে ৩০ জন শিশুর মারা যাওয়ার বিষয়টি তদন্ত করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

তিনি জানান, বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত ৭টি শিশু মারা যায়। এর আগে বুধ এবং বৃহস্পতিবারের মধ্যে ২৩টি শিশু মারা গিয়েছিল। ফলে ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ৩০টি শিশুকে প্রাণ হারাতে হলো।

তবে অক্সিজেনের অভাবে শিশু মৃত্যুর বিষয়টি অস্বীকার করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। তারা জানায়, জরুরি প্রয়োজনে ব্যবহারের জন্য অক্সিজেন সিলিন্ডার তাদের রয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24