সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৮:৪৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ২ জগন্নাথপুরে ৩৯টি মন্ডপে দুর্গাপূজার প্রস্তুতি,চলছে প্রতিমা তৈরীর কাজ জগন্নাথপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কমিটির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা

শেখ হাসিনার ৩৪ তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালন করল গ্রেটার ম্যানচেষ্টার আওয়ামীলীগ

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ১৯ মে, ২০১৫
  • ৮৭ Time View

আমিনুল হক ওয়েছ :: বৃষ্টির সেদিন সতেরোই মে, কন্যা ফেরে ঘর। আকাশ নয় বাতাস নয়-কাঁদে পঁচাত্তর। নৌকা বলে চোখের পানি এতদিনেই মুছবে জানি। লক্ষ মানুষ ভেজে মানুষ, সড়কে আজ বন্যা-বঙ্গবন্ধুর দেশে ফেরে বঙ্গবন্ধু কন্যা। ১৯৮১ সালে ছয় বছরের প্রবাস থেকে ফিরেছিলেন শেখ হাসিনা মা-বাবা ভাইদের বিহিন শুন্য বাড়ী-ঘড়। তিনি এসেছিলেন বাংলার জনগনের অধিকার আদায়ের জন্য বাংলার মানুয়ের গনতন্ত্র পুন প্রতিষ্টা করতে, তাঁর পিতার অসমাপ্ত কাজ সমাপ্তকরতে। ঢাকা বিমানবন্দরে নামার পর যেসব শ্লোগান শুনেছিলেন, তার একটি ছিলো ‘হাসিনা তোমার ভয় নাই, আমরা আছি লাখো ভাই’। শ্লোগানকে শ্লোগান হিসেবে নেওয়াই দস্তুর। নেতানেত্রীরা তাই নেন। কারণ রাজনৈতিক শ্লোগানে ছেলেও বাবাকে ভাই ডাকে। সাত বছর পর শেখ হাসিনা নিশ্চয়ই বিস্ময়ভরে আবিষ্কার করেছিলেন, কথাগুলো নেহাতই কথার কথা ছিলো না।
১৯৮৮ সালের ২৪ জানুয়ারি। লালদিঘির ময়দানে সেদিন আওয়ামী লীগের জনসভা ছিলো। শেখ হাসিনার ওপর সেদিন নির্বিচার গুলি ছুড়েছিলো এরশাদ সরকারের পুলিশ ও সাদা পোষাকধারীরা। কিন্তু গুলি তাকে ছোঁয়নি। দেয়ালে বিধেছে। মানুষের সে দেয়াল থেকে ফিনকি দিয়ে রক্ত বেরিয়েছে। হাসিনার ভাইদের দেয়াল। মাথায় গুলি খেয়ে সীতাকুন্ড কলেজের জিএস যখন উল্টে পড়েছেন, তার জায়গা নিয়েছেন একজন শ্রমিক নেতা। রক্তাক্ত সে দেয়ালের নিরেট দূর্ভেদ্যতা অটুট ছিলো। একটা ইট খসে গেলে সেখানে বসেছে আরেকটি ইট। শেখ হাসিনা নিরাপদ ছিলেন। সেদিন আমাদের চট্টগ্রাম মেডিকেল ছিলো রণক্ষেত্র- জান দেবো, লাশ দেবো না। রাত বারোটা পর্যন্ত চলেছে থ্রি নট থ্রি আর এসএলআরের বিরুদ্ধে ইট পাটকেলের লড়াই। ১৬ বছর পর, ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আবার ভাইদের কাছে ঋণী হয়েছেন হাসিনা। এদিনকার হামলা আরো ভয়ানক ছিলো। গুলির পাশাপাশি ছিলো আর্জেস গ্রেনেড। তুমুল বিস্ফোরণেও হাসিনার ভাইয়েরা ভুলে যায়নি তাদের প্রতিজ্ঞা। শরীরে অজস্র স্প্লিন্টার আর বুলেটের গর্ত নিয়েও দাঁড়িয়ে গেছে মানব দেওয়াল। মৃত্যু দিয়ে বোনের নিশ্চিত মৃত্যুকে ফিরিয়েছেন তারা। স্বীকৃতির পরোয়া করে না এসব মৃত্যু। আত্মাহুতির বিনিময়ে প্রতিদান চায় না। আক্রমণ থেমে থাকবে না। আরো হবে। হুমকি আসে জনসভা থেকে। জাতির জনকের মৃত্যুদিনে বিশাল কেক কেটে আনন্দ উদযাপন করিয়েরা হুমকি দেয় আবারও। শেখ পরিবারকে নির্বংশ করার সেই মিশন থেকে তারা সরবে না। বোকা এই খুনীগুলো, তাদের মুখপাত্রগুলো ভুলে যায় সেই ভাইদের কথা। হাসিনার বুলেটপ্রুফ ভেস্ট পর্যন্ত যাওয়ার আগে কতগুলো শরীর ভেদ করতে হবে তাদের ছোঁড়া গুলিকে। এত বুলেট কোথায় পাবি তোরা! তাদের পারুল বোনটির জন্য সাত ভাই চম্পারা যে শত শত, হাজার হাজার, লাখ লাখ হয়ে যায়।অরুপ মিয়ার পবিত্র কোরআন তিলায়ারে মধ্য দিয়ে উক্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি ছুরাবরি রহমান, যুগ্ম-সম্পাদক রুহুল আমিন রুহেলের পরিচালনায় শুরুতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু সহ-মহান মুক্তিযুদ্ধের সকল শহীদের প্রতি একমিনটি নিরবতা পালন করা হয়, এতে প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সাধারন সম্পাদক এডঃ মীর গোলাম মোস্তফা, বীর মুক্তিযুদ্ধা ডাঃ নজরুল ইসলাম, গউস মিয়া, মাহমুদুর রহমান, ডিএন কোরেশী, রুহুল আমিন চৌঃ মামুন, গাউছুল ইমাম চৌঃ সুজন, ফারুক আহমদ, মুরতাহিম বিল্লাহ চৌঃ জুয়েল, আবুল বশর চৌঃ, মইন আদমদ লিটন, ম্যানচেষ্টার সেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আমিনুল হক ওয়েছ, জাহাঙ্গীর আলম, ম্যানচেষ্টার সেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক ফয়জুল হক জুয়েল, সহ-সভাপতি মনোহর আলী কামাল, ছুরত মিয়া, লিটন মিয়া, রুহুল আমিন, আছাদুল হক, ছফেদুল হক সহ প্রমুখও। বক্তাগন জনতেত্রীর শেখ হাসিনার দীঘাযু কামনা করেন এবং জাতির পিতার সপ্ন বাস্থবায়নে সকলকে এক হয়ে কাজ করার জন্য আহবান করা হয়।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24