সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:৫২ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
ছাত্রদলের নেতাকর্মীদের ওপর ছাত্রলীগের ‘হামলা’ আহত ২৫ অনেকেই গা ঢাকা দিয়েছে, অনেককেই নজরদাড়িতে রাখা হয়েছে: কাদের বিরিয়ানি খেলে শিক্ষকসহ ৪০ জন অসুস্থ আল কোরআন অনুসরণের আহ্বান রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের! জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ

সাংবাদিকদের কাছে নিরপেক্ষতা চাই, অন্য কিছু চাই না- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ২ জুলাই, ২০১৫
  • ৭০ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডেস্ক:: জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস, মাদকদ্রব্য ও চোরাচালানের বিরুদ্ধে সাংবাদিকদের সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘মানুষ হত্যা, সম্পদ ধ্বংস, জীবন্ত মানুষকে পুড়িয়ে মারা এটা কোনো আন্দোলন না, রাজনীতিও না। এটা সরাসরি মানুষ খুন করা। এদের বিরুদ্ধে সাংবাদিক সমাজকে সোচ্চার হওয়ার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি। আপনাদের কাছে নিরপেক্ষতা চাই, অন্য কিছু চাই না।’
বুধবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) যৌথ আয়োজনে ইফতার মাহফিলের প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ আহ্বান জানান।
গঠনমূলক সমালোচনার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, আওয়ামী লীগ সব সময়ই সাংবাদিকদের কল্যাণের কথা চিন্তা করে। আবার সাংবাদিকরা আওয়ামী লীগেরই সবচেয়ে বেশি সমালোচনা করেন। সমালোচনা ভালো হলে আমাদের দৃষ্টি খুলে দেয়। তবে একটা কথা মনে রাখতে হবে, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলার মানুষকে একত্রিত করে স্বাধীনতা এনে দিয়েছিলেন। সেই লক্ষ্য যেন অর্জন হয়। আমাদের মূল লক্ষ্যটা হচ্ছে দারিদ্র্যমুক্ত বাংলাদেশ গড়ে তোলা। আর সেই সুফল হচ্ছে অর্থনৈতিক ভাবে দেশকে এগিয়ে নেয়া ও স্বাবলম্বী করা।
অনলাইন গণামাধ্যমের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা চাই দেশের সংবাদ মাধ্যম আরও শক্তিশালী হোক। নিয়ন্ত্রণ করতে চাই না। কোনো কিছু করতে গেলে নীতিমালা প্রয়োজন। শৃংখলার জন্যই নীতিমালা। প্রেস কাউন্সিল শক্তিশালী করার চিন্তাভাবনা করছি। সাংবাদিকদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থাও করা হবে।
প্রেস ক্লাবকে আধুনিকায়নের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়ে তিনি বলেন, এই প্রেস ক্লাব যেন আধুনিক, দৃষ্টি নন্দন, সুন্দর ও বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে পারে সে জন্য বহুতল ভবন নির্মাণ করুন, পেশাজীবী সাংবাদিকদের প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলুন, যে সহযোগিতা লাগে আমরা করব।
সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টায় জাতীয় প্রেস ক্লাব ইফতার মাহফিলস্থলে আসেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সাংবাদিক নেতারা তাকে স্বাগত জানিয়ে অনুষ্ঠানস্থলে প্রবেশ করালে টেবিল ঘুরে ঘুরে সাংবাদিকদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন তিনি। ইফতারের আগে দেশ-জাতির ও মুসলিম উম্মার শান্তি কামনায় দোয়া ও মোনাজাত করা হয়। বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি মনজুরুল আহসান বুলবুলের সভাপতিত্বে ইফতার মাহফিলে বক্তব্য রাখেন, প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি আলতাফ মাহমুদ, প্রেস ক্লাবের সভাপতি মো. শফিকুর রহমান, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের মহাসচিব আবদুল জলিল ভুইয়া ও প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক কামরুল ইসলাম চৌধুরী। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের মহাসচিব কুদ্দুস আফ্রাদ।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা ঘোষণা দিয়েছিলাম নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু করব। কাজ শুরু করে দিয়েছি। বাংলাদেশ ও দেশের মানুষকে কেউ অসম্মান করলে, তা অন্য কেউ সহ্য করলে করতে পারে, আমার এটা সহ্য হয় না। আন্তর্জাতিকভাবে আমাদের অগ্রগতি হচ্ছে। মানুষের আর্থসামাজিক অগ্রগতি হচ্ছে। এটা হঠাৎ করে আসেনি। আমাদের নীতি ও লক্ষ্য থাকায় আমরা করছি। তিনি বলেন, আগে সাংবাদিকদের নামে মামলা হলেই যে গ্রেফতার হতো, সে আইনটাও আমরা পরিবর্তন করেছি। আমাদের কাছে যারাই সহযোগিতার জন্য আবেদন করেছে, সরকারে থাকি আর বিরোধী দলে থাকি উন্নয়নে কাজ করছি।’
সাংবাদিকদের বিভিন্ন দাবির পরিপ্রেক্ষিতে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমার কাছে কিছু চাইতে হয় না, না চাইতেই সাংবাদিকদের জন্য কল্যাণ ট্রাস্ট করেছি। আবাসিক ব্যবস্থার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, আবাসিক ব্যবস্থার প্লট দিয়েছিলাম. জানিনা প্লট মালিকরা বিক্রি করে দিয়েছেন কিনা। ওভাবে জনে জনে প্লট না দিয়ে সব প্লট এক জায়গায় নিয়ে এসে এক জায়গায় মাল্টিস্টোরড ফ্লাট করে দিলে ভাল হতো। বহু সাংবাদিকের থাকার ব্যবস্থা হতো। ভবিষ্যতে সেই ব্যবস্থা যেন হয়, সে বিষয়টি দেখব। ৮ম ওয়েজ বোর্ড দিয়েছি, আগামীতে ৯ম ওয়েজ বোর্ড যেন হয় সে বিষয়টি দেখব।
অনুষ্ঠানে কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক, প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম, অর্থ উপদেষ্টা ড. মশিউর রহমান, তথ্য সচিব মতুর্জা আহমেদসহ মন্ত্রী, এমপি ও ঊর্ধ্বতন সরকারি কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। সিনিয়র সাংবাদিক ও সম্পাদকদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- সমকাল সম্পাদক গোলাম সারওয়ার, বাসসের এমডি আবুল কালাম আজাদ, বাংলাদেশ প্রতিদিন সম্পাদক নঈম নিজাম, ভোরের কাগজ সম্পাদক শ্যামল দত্ত, সকালের খবরের সম্পাদক মোজাম্মেল হোসেন মঞ্জু, সিনিয়র সাংবাদিক হাসান শাহরিয়ার।
এছাড়া ইফতার মাহফিলে অংশ নেন- আওয়ামী লীগ নেতা মোজাফ্ফর হোসেন পল্টু, অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, অসীম কুমার উকিল, পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদের সভাপতি বিচারপতি মিসবাহউদ্দিন, মহাসচিব, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ডা. কামরুল আহসান খান, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি কাজী রফিক, সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাবান মাহমুদ, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, জনতা ব্যাংকের পরিচালক অ্যাডভোকেট বলরাম পোদ্দার প্রমুখ।
নাগরিক সেবায় আন্তরিক হওয়ার তাগিদ প্রধানমন্ত্রীর : জনগণের আস্থা অর্জনে নাগরিক সেবা দেয়ার ক্ষেত্রে সরকারি কর্মকর্তাদের আরও আন্তরিকভাবে কাজ করার তাগিদ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেছেন, ‘আমি আশা করি, উন্নত নাগরিক সেবা প্রদানের মাধ্যমে জনগণের আস্থা আরও সুদৃঢ় করতে আপনারা ঐকান্তিকভাবে কাজ করে যাবেন।’
কল্প পরিচালক মো. জহিরুল হক, পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপ অফিসের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সাইদ আফসর এইচ উদ্দিন এবং বি

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24