সোমবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৯, ০৯:০২ অপরাহ্ন

জগন্নাথপুরে নিয়ন্ত্রনহীন বাজার, আদার কেজি ২৫০ টাকা

বিশেষ প্রতিনিধি::
  • Update Time : রবিবার, ১১ আগস্ট, ২০১৯
  • ১০৭ Time View

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে রাত পোহাতেই অস্বাভাবিকভাবে বেড়েছে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম। বাজার মনিটরিং না থাকায় একশ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ী ঈদকে সামনে রেখে ক্রেতাদের একধরনের জিম্মি করে অতিরিক্ত দাম আদায় করে নিচ্ছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
আজ রোববার জগন্নাথপুর উপজেলা সদরের জগন্নাথপুর বাজারে ক্রেতারদের সঙ্গে আলাপকালে এমন অভিযোগ পাওয়া গেছে।
সরেজমিনে বাজারে ঘুরে দেখা যায়, জগন্নাথপুর উপজেলা সদরের জগন্নাথপুর বাজারে সকাল থেকেই ক্রেতাদের ঢল নামে। ঈদের কেনাকাটার পাশাপাশি মসলার বাজার, সবজিবাজারসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দোকানগুলোতে উপচেপড়া ভীর দেখা গেছে।
ক্রেতারা জানান, রাত পোহালেই কোরবানির ঈদ। মুসলমি ধর্মালম্বীদের এই বৃহত্তর ঈদকে সামনে রেখে হঠাৎ করেই মসলার বাজারসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দাম বেড়ে গেছে। আজ রবিবার প্রতিকেজি আদা ২০০ থেকে থেকে ২৫০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। অথচ গতকাল ১৬০ থেকে ১৭০ টাকা প্রতিকেজির দামে বিক্রি হয়েছে। অনুরূপভাবে রসুন প্রতিকেজি ১৬০ থেকে ১৭০ টাকা দরে আজ বিক্রি হচ্ছে। গতকাল শুক্রবার প্রতিকেজি রসুনের দাম ছিল ১২০ থেকে ১৩০ টাকা। এছাড়াও বাকর প্রতিকেজি ১৩০, গোলমরিছ ৮০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়াও তেল, পিয়াঁজসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম অন্যদিনের তুলনায় আজ একটু বেশি দামে বিক্রি হচ্ছে।
উপজেলা সদরের জগন্নাথপুর বাজারে আসা ফজলুর রহমান নামে এক ক্রেতা জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, হঠাৎ করে আদার দাম দ্বিগুণ আকারে বেড়ে গেছে। গতকাল শুক্রবারও আদা প্রতিকেজি ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা দরে বিক্রি হয়েছে। অথচ আজ রোববার সকাল থেকেই বাজারে প্রতিকেজি আদা ২২০ থেকে ২৫০ টাকা করে বিক্রি হচ্ছে। এছাড়াও রসুন, বাকরসহ নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের দাম বেড়ে গেছে।
জগন্নাথপুর উপজেলা সদরের জগন্নাথপুর বাজারের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ভূষিমালের ব্যবসায়ী জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকমকে জানান, হঠাৎ করে আদা, রসুনসহ নিত্য প্রয়োজনীয় কিছু পণ্যে সংকট দেখা দেয়ায় দাম কিছুটা বেড়েছে।
এবিষয়ে জানতে জগন্নাথপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মাহফুজুল আলম মাসুমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, নিত্য প্রয়োজনীয় পন্যের দাম নিয়ন্ত্রনে রাখতে আমরা অভিযানে নামবো।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24