1. forarup@gmail.com : jagannthpur25 :
  2. jpur24@gmail.com : Jagannathpur 24 : Jagannathpur 24
জগন্নাথপুর/ ঘরে উরু সমান পানি, চৌকিতে বসে ভয় আর আতঙ্কে কাটলো রাত - জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর
সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪, ১২:৫৮ পূর্বাহ্ন

জগন্নাথপুর/ ঘরে উরু সমান পানি, চৌকিতে বসে ভয় আর আতঙ্কে কাটলো রাত

  • Update Time : বুধবার, ১৯ জুন, ২০২৪
  • ৪৫ Time View

বিশেষ প্রতিনিধি::

ছোট একটি নৌকায় ঘরের আসবাসপত্র বোঝাই করে নিয়ে শহরে এসেছেন গৃহিণী রিছনা বেগম। গন্তব্য নতুন জায়গায় আশ্রয় নেওয়া। কারণ অব্যাহত ভারি বর্ষণ ও ঢলে বসতঘরে এখন ঊরু সমান পানি। এ গৃহিণীর বাড়ি সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর পৌরসভার ইকড়ছই নলজুর নদীর তীরবর্তী এলাকায়।

আজ বুধবার (১৯ জুন) দুপুরে রিছনা বেগমের সঙ্গে কথা হয় পৌর শহরের ইকড়ছই নলজুর নদীর পারে।

পানিবন্দি এ নারী জানালেন, গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা পর্যন্ত তাদের বসতঘরের আঙিনায় পানি ছিল। রাত বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়তে থেকে পানি। আঙিনা পেরিয়ে শয়নকক্ষে যায় পানি।

স্বামী ও দুই মেয়েকে নিয়ে ইটের ওপর চৌকি তুলে সেই চৌকিতে বসে পরিবারের লোকজন জড়ো হয়ে সারা রাত না ঘুমিয়ে কাটান।গৃহিণী আরো বলেন, ‘সারা রাত ভয় আর আতঙ্কে কেটেছে। টানা ভারি বর্ষণ ও দমকা হাওয়ায় ২০২২ সালের ভয়াবহ বন্যার কথা বারবার মনে পড়ছিল। তখনকার কথা মনে হয়ে গলা শুকিয়ে আসছিল।

ভোর থেকে আশ্রয়ের সন্ধানে ছুটলাম। পরে শহরের একটি কলোনিতে আশ্রয় পেয়েছি। তাই প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র নৌকায় করে নিয়ে এলাম।’রিছনা বেগমের মতো নিম্নাঞ্চলের অনেক পরিবার এখন নিরাপদ আশ্রয়ে ছুটছে। উপজেলা প্রশাসন থেকে জানানো হয়েছে, আজ বুধবার পর্যন্ত শতাধিক পরিবার বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে উঠেছে।

জানা গেছে, গত কয়েক দিনের বৃষ্টি আর উজান থেকে নেমে আসা ঢলে কুশিয়ারা ও নলজুর নদীসহ হাওরগুলোতে পানি বেড়ে উপজেলার পাইলগাঁও ইউনিয়নের আলাগদি, জালালপুর, খানপুর, আলীপুর, রানীগঞ্জ ইউনিয়নের রানীগঞ্জ বাজার, রানীনগর, নোয়াগাঁও, আলমপুর, রৌয়াইল, জগন্নাথপুর পৌরসভার যাত্রাপাশা, শেরপুর, পশ্চিম ভবানীপুর, সৈয়দপুর-সৈয়দপুর ও কলকলিয়া ইউনিয়নসর জগন্নাথপুরের বিভিন্ন হাটবাজারসহ শতাধিক গ্রামের লোকজন পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। তলিয়ে গেছে জগন্নাথপুর-বেগমপুর সড়ক, লাউতলা-রসুলগঞ্জ সড়ক, বাউধরন-বেরী সড়ক, বেতাউকা-সমধলসহ জগন্নাথপুরের বিভিন্ন গ্রামীণ সড়ক। ফলে বেড়েছে জনদুর্ভোগ।রানীগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ছদরুল ইসলাম জানান, ইউনিয়নের প্রায় সব গ্রামের মানুষ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। গ্রামীণ সড়কগুলো ডুবে গেছে। মানুষের ভোগান্তি বেড়েছে।

চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শহীদুল ইসলাম বলেন, ‘পানি বেড়ে যাওয়ায় মানুষের মধ্যে বন্যার আতঙ্ক দেখা দিয়েছে। এখন পর্যন্ত আমাদের ইউনিয়নের পরিস্থিতি কিছুটা ভালো। তবে হাওরাঞ্চলে নিচু এলাকায় যারা নতুন বাড়িঘর তৈরি করেছে এসব পরিবার পানিবন্দি হয়ে পড়েছে। আমরা পরিস্থিতি খোঁজখবর নিচ্ছি।’

জগন্নাথপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আল বশিরুল ইসলাম বলেন, ‘উপজেলা সদরের আব্দুস সামাদ আজাদ অডিটরিয়ামসহ বিভিন্ন আশ্রয়কেন্দ্রে শতাধিক পরিবার আশ্রয় নিয়েছে। আমরা সার্বক্ষণিক পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছি।’

শেয়ার করুন

Comments are closed.

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২৩
Design & Developed By ThemesBazar.Com