1. forarup@gmail.com : jagannthpur25 :
  2. jpur24@gmail.com : Jagannathpur 24 : Jagannathpur 24
সোমবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ১১:১৯ পূর্বাহ্ন

কিশোর অপরাধ : আইনি ও ইসলামী দৃষ্টিকোণ

  • Update Time : মঙ্গলবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২১
  • ৫২ Time View

জগন্নাথপুর২৪ ডেস্ক::

সুতরাং সঙ্গী-সাথীদের মধ্যে কেউ অসৎ প্রকৃতির বা অপরাধপ্রবণ থাকলে তাদের প্রভাবে অনেক সময় কিশোর-কিশোরীরা অপরাধপ্রবণ হয়ে উঠে। ‘আদনান আদ-দূরী, আসবাবুল জারীমা ওয়া তবী’আতুস সুলুকিল ইজরামী, কুয়েত : মানশুরাতু যাতিস সালাসিল, ১৯৮৪ খ্রি., পৃ. ৩০৬; আনোয়ার মুহাম্মদ, ইনহিরাফুল আহদাছ, আল-কাহেরা: দারুছ ছাকাফাহ, ১৯৭৭ খ্রি., পৃ. ১১৫-১১৬’। রাসূলুল্লাহ স. ভাল ও খারাপ প্রকৃতির সঙ্গীর সাথে উঠা-বসার বাস্তব পরিণতি উপমার মাধ্যমে তুলে ধরে বলেন, ভাল মানুষের সাহচর্য লাভকারী ব্যক্তি মিসক সুগন্ধিদ্রব্য বিক্রেতার ন্যায়। সে যদি তোমাকে মিসক নাও দেয়, তবে এর একটু ঘ্রাণ তোমার নিকট পৌঁছবেই। আর মন্দ লোকের সাহচর্য অবলম্বনকারী কর্মকারের ন্যায়। কর্মকারের হাপরের ময়লা তোমার গায়ে না লাগলেও একটু ধুয়া হরেও তোমার গায়ে লাগবে। ‘ইমাম আবু দাউদ, আস-সুনান, অধ্যায় : আল-আদব, অনুচ্ছেদ : মান ইয়ূমারু আন ইয়ূজালিসা, খ. ৩, পৃ. ১৮৬-১৮৭, হা-৪৮২৯; হাদীসটির সনদ সহীহ; মুহাম্মাদ নাসিরুদ্দীন আল-আলবানী, সহীহু ওয়া য’ঈফু সুনানি আবী দাউদ, প্রাগুক্ত, খ. ১০, পৃ. ৩২৯; হাদীস নং-৪৮২৯’।
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানর দুর্বলতা : সামাজিক পরিবেশে পরিবারের ভূমিকার পরই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রভাব শিশু-কিশোরদের জীবনে অত্যন্ত গরুত্বপূর্ণ। কিন্তু বর্তমান দ্রুত পরিবর্তনশীল সমাজে এ সকল প্রতিষ্ঠানে প্রাথমিক ও মাধ্যমিক পর্যায়ে শিক্ষার অন্তর্নিহিত তাৎপর্য যেমন শিক্ষকের বিষয়জ্ঞান, সততা, আন্তরিকতা, ছাত্র শিক্ষকের পারস্পরিক সৌহার্দপূর্ণ সম্পর্ক, ছাত্র-ছাত্রীর নৈতিক ও সামাজিক মূল্যবোধের চেতনা কার্যত অনুপস্থিত। ‘আব্দুল হাকিম সরকার, অপরাধবিজ্ঞান তত্ত্ব ও বিশ্লেষণ, প্রাগুক্ত, পৃ. ১৬৮’। এছাড়াও শিক্ষার্থীদের জন্য গঠনমূলক চিত্তবিনোদন, খেলা-ধুলার সুযোগ সুবিধা ও শিক্ষকদের নিরপেক্ষ দৃ’িভঙ্গির অভাবও প্রকট। সুতরাং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পাঠ্যক্রম ও শিক্ষা পদ্ধতি শিশু-কিশোরদের রুচি ও সামর্থ্যরে অনুপযোগী হলে তাদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয় এবং তারা নানা অপরাধমূলক আচরণের মধ্য দিয়ে নিজেদের মানসিক তৃপ্তি লাভ করার চে’া করে। যেমন স্কুল পালিয়ে তারা রাস্তায় ঘোরাফিরা করে এবং ইভটিজিং, আত্মহত্যা, মাদকদ্রব্য গ্রহণ ও বিপণনসহ নানাবিধ অপরাধে জড়িয়ে পড়ে।
সামাজিক শোষণ বঞ্চনা : বর্তমানে জটিল আর্থ-সামাজিক ব্যবস্থায় উপযুক্ত শিক্ষা প্রশিক্ষণ ও পেশা গ্রহণে ব্যর্থ কিশোর-কিশোরীরা নিজেদের সামঞ্জস্য বিধান করতে না পারার কারণে সামাজিক শোষণ বঞ্চনার শিকার হয়। ফলে তাদের মনে তীব্র হতাশা ও নৈরোশ্য দানা বাঁধে, যা এক পর্যায়ে সমাজের বিরুদ্ধে অসন্তোষ ও আক্রোশে রূপ নেয়। এমন পরিস্থিতিতে এই ব্যর্থ কিশোর-কিশোরীরা সামাজিক আইন শৃঙ্খলা ভঙ্গ করে এবং অপরাধমূলক আচার আচরণে লিপ্ত হয়। ‘প্রফেসর মঞ্জুর আহমদ, অস্বভাবী মনোবিজ্ঞান, প্রাগুক্ত, পৃ. ২১৩; ইবরাহীম ‘আব্দুহু আশ-শুরফাবী, জারাইমুস সিগার ফী মীযানিশ শার’ঈ, প্রাগুক্ত, পৃ. ২৩-২৪’।
ভৌগোলিক পরিবেশ : কিশোর অপরাধের সাথে ভৌগোলিক পরিবেশের এক ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক রয়েছে। যেমন মরু এবং গ্রীষ্ম প্রধান এলাকার মানুষ সাধারণত রুক্ষ স্বভাবের ও নিষ্ঠুর প্রকৃতির হয়ে থাকে। এ ছাড়াও অরণ্যে ঘেরা দুর্গম পাহাড়ী এলাকা, চরাঞ্চল ও সীমান্তবর্তী এলাকার কিশোর-কিশোরীরা তুলনামূলক অপরাধপ্রবণ হয়। ‘ড. এ. এইচ. এম. মোস্তাফিজুর রহমান, সামাজিক সমস্যা, প্রাগুক্ত, পৃ. ২২৭’। অপরাধবিজ্ঞানী ডেক্সটারের মতানুযায়ী, বায়ূর চাপের সাথে মানুষের স্নায়ুবিক চাপ প্রত্যক্ষভাবে যুক্ত এবং তার ফলে ব্যারোমিটারে পারদের উঠা-নামার সাথে অপরাধ প্রবণতার হ্রাস-বৃদ্ধি ঘটে। ‘প্রফেসর মো. আতিকুর রহমান, সামাজিক সমস্যা এবং সমস্যা বিশ্লেষণ কৌশল, প্রাগুক্ত, পৃ. ২৬৫’। অন্যদিকে জলবায়ূর প্রভাবজনিত প্রাকৃতিক দুর্যোগের শিকার অনেক শিশু-কিশোর পারিবারিক পরিবেশের বাইরে উদ্বাস্তু ও ভাসমান হিসেবে বেড়ে উঠে। বিধায় জীবনের ন্যূনতম সুযোগ-সুবিধা বঞ্চিত এসব কিশোরের মধ্যে অপরাধ প্রবণতা লক্ষ্য করা যায়। ‘প্রাগুক্ত, পৃ. ২৭৬’।
ঘন ঘন কর্মসংস্থান পরিবর্তন : পিতা-মাতার ঘন ঘন কর্মস্থল পরিবর্তনের কারণে শিশু-কিশোররা নতুন নতুন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক পরিবেশের সংস্পর্শে এসে সহজেই তা অনুসরণ করতে পারে না এবং তাদের ব্যক্তিত্ব অসম্পূর্ণভাবে বেড়ে উঠে। ফলে এটি শিশু-কিশোরদের মধ্যে অপরাধ প্রবণতার জন্ম দেয়। ‘ইবরাহীম ‘আব্দুহু আশ-শুরফাবী, জারাইমুস সিগার ফী মীযানিশ শার’ঈ, প্রাগুক্ত, পৃ. ৩৩-৩৪; প্রফেসর মো. আতিকুর রহমান, সামাজিক সমস্যা এবং সমস্যা বিশ্লেষণ কৌশল, প্রাগুক্ত, পৃ. ২৭৬’।
গণমাধ্যমের প্রভাব : বর্তমান তথ্য প্রযুক্তির যুগে রেডিও, টেলিভিশন, ইন্টারনেট, পত্রিকা, ম্যাগাজিন ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম যেমন মোবাইল, ফেসবুক, টুইটার, ব্লগ, ইউটিউবের ন্যায় গণমাধ্যমগুলো শিশু-কিশোরদের দারুণভাবে প্রভাবিত করে।

সৌজন্যে ইনকিলাব

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১
Design & Developed By ThemesBazar.Com
%d bloggers like this: