সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০১:০২ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ২ জগন্নাথপুরে ৩৯টি মন্ডপে দুর্গাপূজার প্রস্তুতি,চলছে প্রতিমা তৈরীর কাজ জগন্নাথপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কমিটির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা

অনিবন্ধনকৃত ও অবৈধ সিম বিক্রি বন্ধে মোবাইল কোর্ট

Reporter Name
  • Update Time : শুক্রবার, ২৮ আগস্ট, ২০১৫
  • ৭৯ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডেস্ক: দেশের বিভিন্ন স্থানে অনিবন্ধনকৃত ও অবৈধ সিম বিক্রি বন্ধে মোবাইল কোর্ট নামছে। ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের চিঠির ভিত্তিতে গত ২০শে আগস্ট এ সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা সব জেলার ডিসিদের কাছে পাঠিয়েছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের মাঠ প্রশাসন সংযোগ অধিশাখা থেকে উপসচিব মঈন-উল-ইসলাম স্বাক্ষরিত চিঠির বিষয়বস্তুতে বলা হয়েছে, অনিবন্ধনকৃত এবং বিধিবহিভূর্তভাবে নিবন্ধনকৃত মোবাইল সিম জব্দকরণ সংক্রান্ত। এতে বলা হয়েছে, ছোট মুদি দোকান এবং দেশের বিভিন্ন স্থানে অনিবন্ধনকৃত ও বিধি-বহিভূর্তভাবে নিবন্ধনকৃত মোবাইল সিম বিক্রয় করা হয়। এসব সিম বিধিবহির্ভূত ভিওআইপি পরিচালনা এবং আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নকারী বিধি- বহির্ভূত ভিওআইপি পরিচালনা এবং আইনশৃঙ্খলা বিঘ্নকারী নানাবিধ কর্মকাণ্ডে ব্যবহার হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। এ প্রেক্ষাপটে, অনিবন্ধনকৃত এবং বিধি-বহির্ভূতভাবে নিবন্ধনকৃত মোবাইল সিম জব্দ করতে অব্যাহতভাবে দৃশ্যমান অভিযান পরিচালনার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার অনুরোধ জানানো হয়েছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য বলা হলো। এর আগে গত ১৬ই আগস্ট ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ থেকে রেজিস্ট্রেশনবিহীন সিম এবং অবৈধভাবে রেজিস্ট্রেশনকৃত সিমগুলো জব্দ করার জন্য লাগাতারভাবে দৃশ্যমান অভিযান পরিচালনার অনুরোধ করা হয় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগকে। এর ভিত্তিতেই ডিসিদের নির্দেশনা দিয়ে চিঠিটি পাঠিয়েছে তারা। এদিকে মোবাইল কোর্ট বন্ধের অনুরোধ জানিয়ে ১৭ই আগস্ট স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের কাছে একটি আধা সরকারি পত্র (ডিও লেটার) দিয়েছে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম, এমপি। ওই ডিও লেটারে তিনি বলেছেন, সরজমিনে বিভিন্ন ফ্লেক্সি লোড, বিকাশ ও সিম বিক্রির দোকান পরিদর্শন করেছি। ওই সময় অবৈধভাবে কোন ধরনের নিবন্ধন ও জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়া কিছু দালালের মাধ্যমে পেয়ে ওই সব সিম বিক্রির দোকানে এগুলো বিক্রি হতে দেখেছি। হাতেনাতে ধরতেও সমর্থ্য হয়েছি। কিছু সিম আমি জব্দ করেছি এবং জানতে পেরেছি যে, ঢাকা থেকে প্রত্যন্ত অঞ্চলে দালালের কাছ থেকে পেয়ে অলিগলিতে দোকান বসিয়ে এসব সিম বিক্রয় হচ্ছে। যা অপহরণ, মুক্তিপণ আদায়, জঙ্গি তৎপরতা, চাঁদাবাজি ও ভিআইপিদের নামে তদবির বাণিজ্যে ব্যবহার করা হচ্ছে। ডিও লেটারে বলা হয়, বিভিন্ন মোবাইল ফোন কোম্পানির লটের এসব সিম কোন চক্রের মাধ্যমে প্রথমে দালাল এবং পরে অনিবন্ধিত, অবৈধ সিমগুলো যে কোন ক্রেতার কাছে অবৈধভাবে বিক্রি করছে। এক্ষেত্রে যে কিনছে তিনি কোন রেজিস্ট্রেশন করছেন না। ফলে, নানা অপরাধমূলক কাজে এসব সিম ব্যবহার করা হচ্ছে। এ বিষয়ে জরুরি ভিত্তিতে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে এসব অবৈধ সিম বিক্রি বন্ধ, সিম বাজেয়াপ্ত, বিক্রেতাকে শাস্তি এবং এসব অবৈধ কাজে যে চক্র শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত তৎপর রয়েছে তাদের বিষয়ে গোয়েন্দা সংস্থার মাধ্যমে তদন্ত করে মোবাইল কোর্টের মাধ্যমে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার জন্য বিশেষভাবে অনুরোধ করছি। বিষয়টি সম্পর্কে জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা জানান, তারা এ বিষয়ে কাজ করছেন। শিগগিরই এ বিষয়ে দৃশ্যমান অগ্রগতি দেখা যাবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24