রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৮:১৪ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ২ জগন্নাথপুরে ৩৯টি মন্ডপে দুর্গাপূজার প্রস্তুতি,চলছে প্রতিমা তৈরীর কাজ জগন্নাথপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কমিটির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা

চাঁদা না পেয়ে নববধূকে ধর্ষণ, বানারীপাড়া ছাত্রলীগ সভাপতি গ্রেফতার

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ১৭ জুলাই, ২০১৭
  • ২৭ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম ডেস্ক :: চাঁদার দাবিতে স্বামীকে আটকে রেখে নববধূকে ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় গ্রেপ্তার হয়েছেন বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন হোসেন মোল্লা।

জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ রোববার বরিশাল নগরীর কালীবাড়ি রোড থেকে সুমন হোসেন মোল্লাকে গ্রেপ্তার করে।

এরআগে বিকেলে গৃহবধূর স্বামী ছাত্রলীগ নেতা সুমন ও তার সহযোগী মামুনসহ অজ্ঞাতনামা আরও দুজনকে আসামি করে মামলা করেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জেলা ডিবির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. রুহুল আমিন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে নগরীর কালীবাড়ি এলাকায় অভিযান চালিয়ে বানারীপাড়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন হোসেন মোল্লাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

মামলার বরাত দিয়ে এসআই জানান, মামলার বাদী চট্টগ্রামে সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালান। ১০ মাস আগে বিয়ে করা স্ত্রীকে নিয়ে ১৫ দিন আগে তিনি বানারীপাড়ায় গ্রামের বাড়িতে আসেন। কিন্তু এটি তার দ্বিতীয় বিয়ে হওয়ায় পরিবার তাদের মেনে নেয়নি। তখন বধূকে নিয়ে উপজেলার একটি গ্রামে নানার বাড়িতে ওঠেন চালক। খবর পেয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সুমন দলবল নিয়ে সিএনজি চালকের কাছে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। এ নিয়ে বাগবিতণ্ডার একপর্যায়ে সুমন সিএনজিচালক ও তার স্ত্রীকে নিয়ে গ্রামের ক্লাবের একটি কক্ষে আটকে রাখেন। চাঁদার টাকা না দেওয়ায় স্ত্রীকে রাতভর ধর্ষণ করেন সুমন। এ কাজে সুমনকে সহায়তা করেন মামুনসহ তিন সহযোগী। সকালে সিএনজি চালক স্বামীর চিৎকারে বধূকে ফেলে রেখে যান সুমনসহ সহযোগীরা।

এ বিষয়ে বরিশাল জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আবদুর রাজ্জাক সাংবাদিকদের জানান, অভিযোগ প্রমাণিত হলে আইনি ব্যবস্থার পাশাপাশি সুমন মোল্লার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বানারীপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মো. গোলাম সালেহ মঞ্জু মোল্লা বলেন, কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়। সুমন অপরাধ করে থাকলে সুষ্ঠু তদন্ত সাপেক্ষে অবশ্যই তার শাস্তি হবে। ব্যক্তির দায় কখনোই দল বহন করবে না।

বানারীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন জানান, এ ঘটনায় সুমন ও মামুনসহ অজ্ঞাতনামাদের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। ভিকটিমকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24