রবিবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৯, ০৫:১১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরের পাটলীতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা জগন্নাথপুরে গাছ কাটার ঘটনায় যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা হচ্ছে জগন্নাথপুরে শিকল দিয়ে তিনদিন বেঁধে রাখার পর রিকশাচালকের মৃত্যু:হত্যা মামলা দায়ের ভারত বিনা যুদ্ধেই হারাচ্ছে জঙ্গি বিমান, নিহত হচ্ছেন পাইলট ২০০৫ সালের সিরিজ বোমা হামলার বিচার অবশ্যই হবে: পরিকল্পনামন্ত্রী সাপের ছোবলে শিশুর মৃত‌্যু বণাঢ্য আয়োজনে জনপ্রিয় দৈনিক সুনামগঞ্জের খবরের বর্ষপূর্তি উদযাপন দৈনিক সুনামগঞ্জের খবরের এবার বর্ষসেরা প্রতিনিধি হলেন আশিক মিয়া বঙ্গবন্ধুকে ‘ফ্রেন্ড অব দ্য ওয়ার্ল্ড, হিসেবে আখ্যা দিল জাতিসংঘ জগন্নাথপুরে তিন লাখ টাকা মূল্যের সরকারি গাছ ‘কেটে’ নিলেন যুবলীগ নেতা।

জগন্নাথপুরের সাত ইউনিয়নে নৌকার মাঝি হচ্ছেন কারা ?

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ২৩ এপ্রিল, ২০১৬
  • ৩৫ Time View

বিশেষ প্রতিনিধি:: আগামী ২৮ মে জগন্নাথপুর উপজেলার সাতটি ইউনিয়নে নির্বাচন প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীকে এ নির্বাচন হচ্ছে। নির্বাচনে ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগের দলীয় প্রার্থী কারা হচ্ছেন এনিয়ে উপজেলাবাসীর নজর রয়েছে। গত কয়েক মাসের অব্যাহত লবিং তদবির শেষ এখন শুধু ঘোষনার পালা। কারা হচ্ছেন উপজেলার সাত ইউনিয়নের নৌকার মাঝি তা নিয়ে চলছে আলোচনা।
তন্মেধ্যে একটি আলোচনা বেশ প্রাধান্য পাচ্ছে বিগত জাতীয় নির্বাচনে যারা নৌকার পক্ষে ছিল তারা, না-কী জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর পক্ষে যারা ফুটবল প্রতীকের নির্বাচন করেছে তারা নৌকার মাঝি হবেন। ইতিমধ্যে দুই বলয়ের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থীরা জোর লবিং চালিয়ে যাচ্ছেন। দুপক্ষই চ্যালেঞ্জ নিয়েই মনোনয়ন তদবিরে লড়ছেন। উপজেলা আওয়ামী লীগের একাধিক সূত্রে জানা গেছে, জগন্নাথপুরের ৭ ইউনিয়নে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার যোগ্য, দলের নেতাকর্মী ও ভোটারদের কাছে গ্রহণযোগ্য প্রার্থীদের নামের তালিকা জেলা আওয়ামী লীগের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।জেলা আওয়ামীলীগ নেতারাও উপজেলা আওয়ামীলীগের তালিকা কেন্দ্রীয় দপ্তরে প্রেরণ করেছেন। উপজেলা আওয়ামীলীগের তালিকা অনুযায়ী তৃণমুল থেকে কলকলিয়া ইউনিয়নে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক দীপক কান্তি দে, জেলা যুবলীগের সাবেক আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আলাল হোসেন রানা ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফখরুল ইসলাম এর নাম পাঠানো হয়েছে। অপরদিকে বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার বিপক্ষে অবস্থান নিয়ে আজিজুস সামাদ ডনের ফুটবল প্রতীকের পক্ষে থাকা কলকলিয়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাশিম ও উপজেলা সেচ্ছাসেবকলীগ আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান এর নাম কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে। এখন দেখার বিষয়ে এ ইউনিয়নে কে হচ্ছেন নৌকার মাঝি। পাটলী ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের প্রার্থী হিসেবে তৃনমুল থেকে এককভাবে বর্তমান চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি সিরাজুল হক এর নাম পাঠানো হলেও বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার বিরোধীতাকারী সাবেক চেয়ারম্যান আঙ্গুর মিয়ার নাম নিয়ে লবিং করেছেন আজিজুস সামাদ ডন অনুসারীরা। চিলাউড়া ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামীলীগ সদস্য আরশ মিয়ার নাম তৃণমুল থেকে পাঠানো হলেও আজিজুস সামাদ ডন অনুসারীরা এ ইউনিয়নে শহিদুল ইসলাম বকুলের জন্য মরণপণ লড়াই করছেন। রানীগঞ্জ ইউনিয়নে তৃনমুল থেকে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সভাপতি সুন্দর আলী ও সাধারণ সম্পাদক ডা. ছদরুল ইসলাম, রানা মিয়া মেম্বার এর নাম পাঠানো হলেও প্রতিপক্ষরা সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাফিজের জন্য লড়াই করছেন। এ ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান আওয়ামীলীগ নেতা মজলুল হক নিজে নিজে নৌকার জন্য লড়ছেন। সৈয়দপুর শাহারপাড়া ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা বিগত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার পক্ষে সক্রিয় থাকা আবুল হাসানের নাম তৃণমুল থেকে পাঠানো হয়। এ ইউনিয়নে এক যুক্তরাজ্য প্রবাসী আওয়ামীলীগের মনোনয়নের জন্য লড়ছেন। তবে এ ইউনিয়নে আজিজুস সামাদ ডন অনুসারীরা বিশেষ কারো জন্য লড়চেন বলে দাবি করেছেন। আশারকান্দি ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা আইয়ুব খান, সাবেক চেয়ারম্যান আবু ঈমানী,সাবেক চেয়ারম্যান মদরিছ মিয়ার নাম তৃণমুল থেকে গেছে। উপজেলা আওয়ামীলীগের দায়িত্বশীলরা বর্তমান চেয়ারম্যান আইয়ুব খানের জন্য লড়ছেন কারণ এ ইউনিয়নের অপর প্রার্থী সাবেক চেয়ারম্যান আবু ঈমানীর পিতার বিরুদ্ধে ৭১ এর ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। আর মদরিছ মিয়ার পক্ষে আজিজুস সামাদ ডন অনুসারীদের লবিং রয়েছে।

পাইলগাঁও ইউনিয়নে বর্তমান চেয়ারম্যান আপ্তাব উদ্দিন ও সাবেক চেয়ারম্যান মঞ্জুর আলী আফজাল এর নাম তৃণমুল থেকে পাঠানো হয়েছে। দু’জনই আওয়ামীলীগের মুলধারার প্রার্থী হিসেবে নৌকার মাঝি হতে লড়ছেন।
আজিজুস সামাদ ডন অনুসারী হিসেবে পরিচিত উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জয়দ্বীপ সূত্রধর বীরেন্দ্র জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে জানান, জগন্নাথপুর উপজেলা আওয়ামীলীগ থেকে তৃণমুলের প্রার্থীতা যথাযথ প্রক্রিয়া অনুসরন করা হয়নি। অনেক জনপ্রিয় প্রার্থীদের নাম পাঠানো হয়নি।বিষয়টি জেলা ও কেন্দ্রীয় মনোনয়ন বোর্ডকে অবহিত করেছি। আমরা কলকলিয়া, পাটলী ও চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়নে তৃণমুলের নাম সঠিক না হওয়ায় আমাদের প্রার্থীদের মনোনয়ন দিতে দাবি জানাচ্ছি।
জগন্নাথপর ‍উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আকমল হোসেন জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে জানান, আমরা নিয়মমোতাবেক তৃণমুল থেকে নাম পাঠিয়েছি। আশা করছি জেলা সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কেন্দ্রে তৃণমুলের নাম পাঠাবেন। কেন্দ্রীয় মনোনয়ন বোর্ড তৃণমুলের মতামতকে প্রাধান্য দিয়ে নৌকার মাঝি ঠিক করে দিবেন বলে আশা করছি। তিনি বলেন, তৃণমুলের প্রার্থীদের নৌকা প্রতীক দিলে জয়লাভ সহজ হবে।
জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এনামুল কবির ইমন জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে বলেন,জগন্নাথপুরের তৃণমুলের তালিকা আমরা পেয়েছি। আজ কেন্দ্রীয় দপ্তরে জেলা আওয়ামীলীগের পক্ষ থেকে তা দাখিল করা হবে। কেন্দ্রীয় মনোনয়ন বোর্ড থেকে দুই একদিনের মধ্যে প্রার্থী ঠিক করে দেয়া হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24