শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৭:৪১ অপরাহ্ন

দিরাই শাল্লা উপনিবার্চন বিএনপির বর্জন করলেও স্বতন্ত্রপ্রার্থীর পক্ষে নাছির

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ২২ মার্চ, ২০১৭
  • ২৩ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম ডেস্ক :: সুনামগঞ্জ-২ (দিরাই-শাল্লা) উপ-নির্বাচন ক্রমেই আলোচিত হয়ে ওঠছে। বর্জন করেও নির্বাচনী প্রচারণায় আছে বিএনপি’র একাংশ। জেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক নাছির উদ্দিন চৌধুরী মঙ্গলবার সন্ধ্যায় বলেছেন,‘আমাদের ভোট নৌকায় না দিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে দেবার জন্য কর্মীসভা করে বলে দিয়েছি।’ জেলা বিএনপি’র আহ্বায়ক এবং স্থানীয় রাজনীতিতে সুরঞ্জিত বিরোধী বলয়ের নেতা হিসাবে পরিচিত নাছির উদ্দিন চৌধুরী’র এমন অবস্থানে বিব্রত বিএনপি নেতারাও। বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সহসাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক সংসদ সদস্য কলিম উদ্দিন আহমদ মিলন বলেন,‘বিএনপি জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে না। এর ধারাবাহিকতায় দিরাই-শাল্লাতেও না। এটাই বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি’র কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্ত।’
স্বতন্ত্র প্রার্থী ছায়েদ আলী মাহবুব হোসেন রেজু’র পক্ষে জেলা বিএনপির আহবায়ক নাছির উদ্দিন চৌধুরী কৌশলে সমর্থন দেওয়ায় অপেক্ষাকৃত কম পরিচিত রেজু’র পক্ষেও কিছু কিছু স্থানে প্রচারণা হচ্ছে। তবে বিএনপি নেতা কর্মীদের মধ্যে এই নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।
নির্বাচনে নাছির উদ্দিন চৌধুরী’র এই অবস্থানকে অত্মঘাতি উল্লেখ করে তাড়ল ইউনিয়ন বিএনপি সভাপতি আবুল বায়েছ বলেন, ‘তৃণমুল নেতাকর্মীদের মতামতকে উপেক্ষা করে গত কয়েকদিন ধরে দিরাই উপজেলার রাজানগর, চরনারচর, ভাটিপাড়া, ধনপুর এবং শাল্লা উপজেলার বিভিন্ন জায়গায় সভা করে স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে ভোট চেয়েছেন নাছির উদ্দিন চৌধুরী। যা দলের নেতাকর্মীদের বিভ্রান্ত করছে।’
জেলা বিএনপির সাবেক যুব বিষয়ক সম্পাদক, পৌর বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির তালুকদার বলেন, ‘বিএনপি নির্বাচনে আসেনি, অথচ দলের দায়িত্বশীল নেতা হয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে অবস্থান নিয়ে দলকে হাস্যকর করছেন কেউ কেউ।’
উপজেলা বিএনপির সভাপতি কামরুজ্জামান বলছেন, ‘বিএনপি স্বতন্ত্র প্রার্থী রেজুকে সমর্থন দিয়েছে ঠিক, তবে নির্বাচনী প্রচারণায় অংশ নেয়নি, আমরা দলীয় কর্মীসভা করছি, কর্মীসভায় নাছির উদ্দিন চৌধুরী নৌকায় ভোট না দেয়ার জন্য বলেছেন।’
স্থানীয় রাজনীতিতে সুরঞ্জিত বিরোধী বলয়ের নেতা হিসাবে পরিচিত নাছির উদ্দিন চৌধুরী ১৯৯৬ সালে জাপার প্রার্থী হয়ে সামান্য ভোটের ব্যবধানে পরাজিত করেন সুরঞ্জিত সেন গুপ্তকে। পরে বিএনপিতে যোগদান করে পর পর দুই বার পরাজিত হলেও হাল ছাড়েননি তিনি। স্থানীয় থেকে জাতীয় নির্বাচন সর্বত্রই সুরঞ্জিত সেন গুপ্তের বিরুদ্ধে অবস্থান নেন তিনি। সুরঞ্জিত সেন গুপ্তের মৃত্যুর পর তাঁর স্ত্রী ড. জয়া সেন গুপ্তার নির্বাচনেও তাই করলেন নাছির উদ্দিন চৌধুরী।
উপজেলা কৃষকদলের সহ সভাপতি শাহজাহান তালুকদার বলেন, ‘নাছির উদ্দিন চৌধুরী জেলা বিএনপির একটি দায়িত্বশীল নেতৃত্বে থেকে বিএনপির কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্তকে উপেক্ষা করে, ধনকুবের স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে সরাসরি প্রচারণা চালিয়ে দলকে বিতর্কিত করছেন।’
জেলা বিএনপির আহ্বায়ক নাছির উদ্দিন চৌধুরী বলেন,‘স্বতন্ত্র প্রার্থীকে আমরা সমর্থন দিয়েছি। আমাদের ভোট যাতে নৌকায় না পড়ে, এজন্য আমরা কর্মী সভা করে সকলকে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে ভোট দেবার জন্য বলে দিয়েছি।’

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24