শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৩:৪৬ অপরাহ্ন

দেশে সাক্ষরতার হার কমেছে

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৫
  • ২৯ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডেস্ক:: ২০১৩ সালে দেশে সাক্ষরতার হার ছিল ৭১ শতাংশ। ২০১৪ সালে সেটি কমে দাঁড়ায় ৬৫ শতাংশে। এবার সেই সংখ্যা ৬১ শতাংশ। পরিসংখ্যান ব্যুরো ২০১০ সালে রিপোর্টে বলা আছে, দেশের সাক্ষরতার হার ৫৯ শতাংশ। এ রকম তথ্য-বিভ্রান্তির মধ্যে গতকাল প্রকাশ করা হলো বর্তমানে দেশের সাক্ষরতার হার। অর্থাৎ এক বছরের ব্যবধানে দেশের সাক্ষরতার হার কমেছে ৪ শতাংশ। গত বছর দেশে সাক্ষরতার হার ছিল ৬৫ শতাংশ। এদের মধ্যে পুরুষ হচ্ছে ৬৪ দশমিক ২ ও মহিলা হচ্ছে ৫৭ দশমিক ৮ শতাংশ। গতকাল সচিবালয়ে আন্তর্জাতিক সাক্ষরতা দিবস (৮ সেপ্টেম্বর) উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর তথ্য উদ্ধৃত করে প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান এ কথা জানান। সাক্ষরতার হার কেন কমেছে তার সুনির্দিষ্ট ব্যাখ্যা দিতে না পারলেও মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা বলছেন, ২০১০ সালে পরিসংখ্যান ব্যুরো সাক্ষরতার ওপর যে জরিপ করেছিল, সেটিকে সামনে রেখে আমাদের তথ্য সংগ্রহ করতে হয়। ৫ বছর আগে পরিসংখ্যানের সঙ্গে বাস্তবতা অনেক তফাত আছে বলেও জানান তারা। তথ্যগত ভুলের কারণে প্রতি বছর সাক্ষরতার হারের গরমিল দেখা গেলেও বাস্তবে দেশের সাক্ষরতার হার কমেনি। বরং বেড়েছে বলে দাবি মন্ত্রণালয়ের।
গণশিক্ষামন্ত্রী বলেন, নিরক্ষরতা দূরীকরণে উপানুষ্ঠানিক শিক্ষাব্যুরোর মাধ্যমে সারা দেশে ১৫ থেকে ৪৫ বছর বয়সী নিরক্ষর মানুষকে সাক্ষরতা দেয়া হবে। এ কর্মসূচি বাস্তবায়নে জেলা প্রশাসকরা প্রতি জেলায় ৪টি করে এনজিও নির্ধারণ করবেন। এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে পারলে সাক্ষরতার হার ৭৫ থেকে ৮০ ভাগে পৌঁছে যাবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।
তবে এর সঙ্গে দ্বিমত প্রকাশ করে গণসাক্ষরতা অভিযানের নির্বাহী পরিচালক রাশেদা কে চৌধুরী বলেন, সরকারের সাক্ষরতা হারের দিকে মনোযোগ নেই বলে এমন তথ্য বের হয়ে আসছে। প্রতিবারই সাক্ষরতা নিয়ে কর্মসূচি মাঠপর্যায়ে বাস্তবায়ন না হওয়া, এসব প্রকল্প ঘিরে দুর্নীতি, স্বজনপ্রীতি, অনিয়ম বাসা বাঁধে। এগুলো দূর করতে না পারলে সাক্ষরতার হার বাড়বে বলে বলে মন্তব্য করেন তিনি।
সংবাদ সম্মেলনে প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, দেশে এখন সাক্ষরতার হার ৬১ শতাংশ। এর মধ্যে ৫-৯ বছর বয়সীদের মধ্যে সাক্ষরতার হার ১৬ দশমিক ৪৩ শতাংশ। ১০-১৪ বছর বয়সীদের মধ্যে এ হার ৬৭ দশমিক ৩৮ শতাংশ। ১৫-১৯ বছর বয়সীদের সাক্ষরতার হার ৮২ দশমিক ১৭ শতাংশ, ২০ থেকে ২৪ বছর বয়সীদের ক্ষেত্রে ৭৫ দশমিক ৯ শতাংশ এবং ১৫-২৪ বছর বয়সীদের মধ্যে ৭৮ দশমিক ৬৩ শতাংশ সাক্ষরজ্ঞান সম্পন্ন। এদিকে, প্রতিবছরই সাক্ষরতার হার নিয়ে সরকারের পক্ষ থেকে বিভ্রান্তিকর তথ্য দেয়া হচ্ছে। গত বছর সাক্ষরতা দিবসে মন্ত্রী জানিয়েছিলেন, বাংলাদেশের ৬৫ শতাংশ মানুষ সাক্ষর আর নিরক্ষর মানুষের সংখ্যা আড়াই কোটি। ২০১০ সালের পর বিভিন্ন সময় মন্ত্রী থেকে শুরু করে সরকারের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারাও বিভিন্ন অনুষ্ঠানে এবং গণমাধ্যমে সাক্ষরতার হার নিয়ে বিভিন্ন রকম তথ্য দিয়েছেন। ওই বছর বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) জরিপ অনুযায়ী, দেশে সাক্ষরতার হার ছিল ৫৯ দশমিক ৮২ শতাংশ।
২০১৩ সালে তৎকালীন প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী আফছারুল আমীন সাক্ষরতার হার ৭১ শতাংশে পৌঁছেছে বলে দাবি করেন। কিন্তু পরের বছরই মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান দেশের ৬৫ শতাংশ সাক্ষর বলে তথ্য দেন।
প্রাথমিক শিক্ষার উন্নয়নে বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রাথমিকে উপবৃত্তি ভোগী শিক্ষার্থীর সংখ্যা আরও ৫২ লাখ বাড়ানো হচ্ছে। বর্তমানে ৭৮ লাখ শিক্ষার্থী উপবৃত্তি পায়। শিগগিরই এটি এক কোটি ৩০ লাখে উন্নীত করা হবে। তিনি জানান, দেশে সাত বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যে সাক্ষরতার হার ৫৪ দশমিক ১৯ শতাংশ, ১৫ বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যে ৫৯ দশমিক ৮২ শতাংশ এবং ২৫ বছরের বেশি বয়সীদের মধ্যে ৫২ দশমিক ৭৫ শতাংশ মানুষ সাক্ষর। সংবাদ সম্মেলনে এ সময় এমপি নজরুল ইসলাম, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব মেছবাহ উল আলম ও মন্ত্রণালয় এবং উপানুষ্ঠানিক শিক্ষাব্যুরোর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, ১৯৯৬ সালের ১৭ই নভেম্বর জাতিসংঘ সংস্থা ইউনেস্কো ৮ই সেপ্টেম্বরকে আন্তর্জাতিক সাক্ষরতা দিবস হিসেবে ঘোষণা করে। এবারের আন্তর্জাতিক এ দিবসের প্রতিপাদ্য নির্ধারণ করা হয়েছে- ‘সাক্ষরতা আর দক্ষতা, টেকসই সমাজের মূল কথা।’ দিবসটি উপলক্ষে ওইদিন ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে এক আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়েছে। সেখানে প্রধান অতিথি থাকবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর আগে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তন পর্যন্ত শোভাযাত্রা হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24