বুধবার, ২১ অগাস্ট ২০১৯, ০৬:১২ অপরাহ্ন

সুনামগঞ্জে প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি -নারীর ক্ষমতায়ন ছাড়া দেশের উন্নতি সম্ভব নয়

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ১১ নভেম্বর, ২০১৭
  • ১৮ Time View

স্টাফ রিপোর্টার ::
মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি এমপি বলেছেন, নারীদের তাদের অধিকার সম্পর্কে জানতে হবে ও জানাতে হবে। সুনামগঞ্জের চাল খেয়ে অনেক মানুষ বেঁচে আছে কিন্তু আপনারা অনেক কিছু থেকে বঞ্চিত। তার মধ্যে একটা হল যোগাযোগ ব্যবস্থা। যখন আমরা এই সকল এলাকাগুলোতে আসি সবচেয়ে যে বড় সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় তা হল যোগাযোগ ব্যবস্থা। বাংলাদেশ বা বিশ্বেরই বলেন সবচেয়ে বেশি বঞ্চনার শিকার হয় নারীরা এবং নারীর সাথে শিশুরা সম্পৃক্ত কাজেই নারী সম্যায় পড়লে শিশুও সমস্যায় পড়ে। ঠিক এমনিভাবে এই এলাকায়ও নারীরা পিছিয়ে আছে।
শুক্রবার সকালে সুনামগঞ্জ সার্কিট হাউজ সম্মেলন কক্ষে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় ও জেলা প্রশাসন আয়োজিত মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
জেলা প্রশাসক সাবিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (প্রশাসন) মিজানুর রহমান, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের অতিরিক্ত পরিচালক (উপ-সচিব) শাহনওয়াজ দিলরুবা খান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) কামরুজজামান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সঞ্জয় সরকার, জেলা খেলাঘর সভাপতি বিজন সেন রায়, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নিগার সুলতানা কেয়া, জেলা পরিষদের সদস্য ফৌজি আরা বেগম শাম্মী, জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা বাদল চন্দ্র বর্মণ, জেলা তথ্য অফিসার আনোয়ার হোসেন, বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা মহিলা সংগঠন কর্মকর্তা জান্নাতুল মরিয়ম, জেলা উদীচী’র সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, রংধনু সামাজিক সংগঠনের সভাপতি নুরুল মোমেন তালুকদার প্রমুখ।
প্রধান অতিথির প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি আরো বলেন, পরিবেশগত কারণে মেয়েরা পড়ালেখা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। তিনি বলেন, আমাদের মেয়েরা অনেক কিছু জানে ঘরে বসে অনেক কাজ করে। কিন্তু আমরাও বিভিন্ন সুযোগ করে দিচ্ছি বিভিন্ন ধরনের প্রশিক্ষণ দিয়ে। উনারা এটায় কোথায় বিক্রি করবে আমরা চিন্তা করেছি। ইতিমধ্যে আপনারা জানেন যে প্রধানমন্ত্রী আমাদের ১৪তলা একটা ভবন দিয়েছেন এবং আমরা সারা বাংলাদেশে ৮টি বিভাগে আমরা জায়গাও পেয়ে গেছি এখানে আমরা প্রত্যেকটা জায়গায় একটা করে দোকান করে দিব বড় আকারে। তারা সবাই এই জিনিসগুলো বিক্রি করার সুযোগ পাবে।
মেহের আফরোজ চুমকি এমপি বলেন, আমাদের আগে একটা ছোট মন্ত্রণালয় ছিল। আমাদের বাজেটই হতো ৫০০ কোটি টাকা। কিন্তু এখন আপনারা জেনে খুশি হবেন এখন একটা একটা প্রজেক্টে ৫০০ কোটি টাকার মতো ব্যয় করছি। আমাদের ২৫০ কোটি টাকার একটা প্রজেক্টেরও অনুমোদন পেয়েগেছি। যার মাধ্যমে উপজেলা পর্যায়ে যারা ভালো কাজ করতে পারে। তাছাড়া আমরা ১৮ রকমের যে প্রশিক্ষণগুলো দিচ্ছি সেই প্রশিক্ষণগুলো সারা বাংলাদেশে হবে। শুধু প্রশিক্ষণ নয় যাতায়াত ভাড়াটাও পর্যন্ত আমরা দিয়ে দিব।
অপরদিকে, ওইদিন সকাল সাড়ে ১১টায় মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর ও বিএফএ স্কিল ডেভেলপমেন্ট এন্ড অরফানেজ, দিরাই কর্তৃক দিরাই উপজেলায় কারিগরি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে এতিম ও অসহায় কিশোরীদের জীবনমান উন্নয়নের লক্ষ্যে একাডেমিক এবং আবাসিক ভবন নির্মাণ কর্মসূচির ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি বলেন, আমাদের দেশের নারীরা সবচেয়ে অবহেলিত বটেই এর চেয়ে আরও বেশি অবহেলিত আমাদের কিশোরীরা। দেশের অনেক জায়গায় মেয়েশিশুকে এখনো অবহেলার চোখে দেখা হয়। আসলে মেয়েরা হচ্ছে আমাদের সম্পদ। তাদেরকে কারিগরি প্রশিক্ষণ দিয়ে উপযুক্ত বানাতে পারলে তারা দেশ ও জাতির কল্যাণে ভূমিকা রাখতে পারবে। দেশের এতিম অসহায় কিশোরীদের কারিগরি প্রশিক্ষণ দিয়ে মানবসম্পদে রূপান্তরিত করতে ফিমেইল একাডেমিতে এ কারিগরি ভবন প্রতিষ্ঠা করা হচ্ছে। সরকার কিশোরীদের মানবসম্পদে রূপান্তরিত করতে ব্যাপক কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নারীর ক্ষমতায়নে সারা বিশ্বের নজর কেড়েছেন। যে দেশের অর্ধেক নারী সে দেশে নারীর ক্ষমতায়ন ছাড়া দেশের উন্নতি কখনো সম্ভব নয়। সরকার হাওরপাড়ের শিক্ষার উন্নয়নে খুবই আন্তরিক।
জেলা প্রশাসক সাবিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন একাডেমির প্রতিষ্ঠাতা জামিল চৌধুরী। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত উপস্থিত ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রলায়ের অতিরিক্ত সচিব (প্রশাসন) মিজানুর রহমান, অতিরিক্ত পরিচালক শাহনওয়াজ দিলরুবা খান, কর্মসূচি পরিচালক জিলান উদ্দিন, পি কে চৌধুরী, দিরাই উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মঈন উদ্দিন ইকবাল, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ছবি চৌধুরী।
উপস্থিত ছিলেন দিরাই সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার বেলায়ত হোসেন শিকদার, দিরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোস্তফা কামাল, উপজেলা প্রকৌশলী ইফতেখার হোসেন, উপজেলা মেডিকেল অফিসার মনি রানী তালুকদার, দিরাই প্রেসক্লাব সভাপতি সামছুল ইসরাম সরদার খেজুর, ডা. মিজানুর রহমান, যুক্তরাজ্য প্রবাসী দবিরুল ইসলাম চৌধুরী, কয়েছ চৌধুরী, আতিক চৌধুরী, একাডেমির প্রিন্সিপাল নাজমা বেগম, শিক্ষক আকিবুননেছা, জহুরা বেগম প্রমুখ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24