রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০৯:০৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে নৌপথে বেপরোয়া ‘চাঁদাবাজি’,চাঁদা না দিলে শ্রমিকদের মারধর করে লুটে নেয় মালামাল মিরপুরের সেই প্রার্থী আপিলে ফিরলেন নির্বাচনী লড়াইয়ে মিরপুর ইউপি নির্বাচনে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করলেন দুইজন, কাল প্রতিক বরাদ্দ পড়াশোনার পাশাপাশি শিক্ষার্থীদের নামাজ শেখানো হয় যে বিদ্যালয়ে পানির নিচে প্রেমিকাকে বিয়ের প্রস্তাব দিতে গিয়ে মৃত্যু! সিলেটে চারদিনের রিমান্ডে পিযুষ যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুকধারীর গুলিতে নিহত ২ জগন্নাথপুরে ৩৯টি মন্ডপে দুর্গাপূজার প্রস্তুতি,চলছে প্রতিমা তৈরীর কাজ জগন্নাথপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কমিটির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা

স্পট জগন্নাথপুর -গ্রাহকরা যখন রাজপথে কর্মকর্তা তখন ঢাকায়

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ১০ জুলাই, ২০১৭
  • ৪০ Time View

আলী আহমদ :: অস্বাভাবিক বিদ্যুৎ বিভ্রাটে অতিষ্ট হয়ে জগন্নাথপুরের গ্রাহকরা যখন রাজপথে তখন বিদ্যুৎ কর্মকর্তা ঢাকায় ছুটিতে সময় কাটাচ্ছেন।
গত কয়েকদিন ধরে অসহনীয় বিদ্যুতের ভেলকিবাজি চলছে জগন্নাথপুর উপজেলা জুড়ে। ফলে অতিষ্ট উপজেলাবাসী দাবি আদায়ে রাজপথে নামেন। স্থানীয় বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাওসহ বিভিন্ন কর্মসুচী ঘোষনা করা হয়।
কর্মসুচীর অংশ হিসেবে গতকাল রোববার সকাল থেকে জগন্নাথপুর পৌরশহরে ক্ষুব্দ গ্রাহকরা অবস্থান নেন। প্রস্তুুতি চলচিল ঘেরাও কর্মসুচীর। ইতিমধ্যে মানববন্ধব কর্মসুচী পালন করা হয়েছে। এ কর্মসুচীর শেষের দিকে উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারাদের সঙ্গে আন্দোলনকারীদের সমঝোতা হলে ঘেরাও কর্মসুচী প্রত্যাহার করে দেয়া হয়। ওই দিন রাজপথে সর্বস্তরের লোকজন অধিকার আদায়ে আন্দোলনে তখন জগন্নাথপুরের বিদ্যুতের প্রধান দায়িত্বে থাকা উপজেলা বিদ্যুৎ প্রকৌশলী আজিজুল ইসলাম কালাম আজাদ ঢাকায় । খোঁজ নিয়ে জানা গেছে তিনি গত ৪/৫ দিন যাবত ঢাকায় ছুটিতে আছেন। ওই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে জগন্নাথপুরে যোগদারে পর থেকেই দায়িত্বপালে অবহেলার অভিযোগ উঠে। সম্প্রতি তিনি জগন্নাথপুর উপজেলা আইন শৃংখলা সভায় সরকারি কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, গনমাধ্যক কর্মীসহ সচেতন মহলের নেতৃবৃন্দের তোপের মুখে পড়েন । তারপরও বিদ্যুৎ পরিস্থির কোন উন্নতি ঘটেনি জগন্নাথপুরে। ঝড় বৃষ্টি ছাড়াই ঘন্টার পর ঘন্টা বিদ্যুৎ থাকে না। গত শনিবার টানা ১০ ঘন্টা বিদ্যুৎ ছিল না জগন্নাথপুর।

বিদ্যুতের অবিশ্বাস্য লোড শেডিংয়ের প্রতিবাদে সচেতন জগন্নাথপুর উপজেলাবাসির ব্যানারে গত ৩/৪ ধরে প্রচারনা করা হয় বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাওসহ বিভিন্ন কর্মসুচীর। এতে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠলে জগন্নাথপুরের ইউএনও মোহাম্মদ মাসুম বিল্লাহ নিদের্শে এসিল্যান্ড শামিম আল ইমরান, বিদ্যুতের নিবার্হী প্রকৌশলী, ও ক্ষমতাশীন দলের নেতৃবৃন্দে নিয়ে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে সমঝোতা বৈঠক করে দ্রুত বিদ্যুতের সমস্যা সমাধানের প্রতিশ্রতি প্রদান করলে আন্দোলনকারীরা কর্মসুচী স্থগিত করেন।

জগন্নাথপুর পৌরশহরের ইকড়ছই আবাসিক এলাকার বাসিন্দা শিক্ষক সাইফুল ইসলাম রিপন জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে জানান, সরকার জগন্নাথপুরের বিদ্যুৎ পরিস্থিতি উন্নতির লক্ষ্যে অতিরিক্ত একজন নির্বাহী প্রকৌশলী নিয়োজিত করা হয়েছে। উপজেলা বিদ্যুৎ প্রকৌশলী প্রায়ই ছুটিতে থাকেন। তার বিরুদ্ধে দায়িত্বপালে গাফিলতির অভিযোগ রয়েছে। দ্রুত সংকট নিরসনে কর্তৃপক্ষের সুষ্টু পদক্ষেপ গ্রহনের জন্য তিনি আহবান জানান। অন্যতায় আন্দোলন নামবে উপজেলাবাসী।
বিদ্যুৎ আন্দোলনের নেতা শাহ নুরুল করিম জানান, বিদ্যুতের সমস্যা অচিরে সমাধান করা না হলে বৃহত্তর আন্দোলনে নামব।

এব্যাপারে সোমবার জগন্নাথপুরের বিদ্যুৎ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলীর শ্যামল চন্দ সরকারের সঙ্গে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম কে জানান, অফিসিয়াল কাছে উপজেলা বিদ্যুৎ প্রকৌশলী ঢাকায় ছিলেন। তবে আজ (সোমবার) অফিসে যোগদান করেছেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24