রবিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০১৯, ১০:৫৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে হালিমা খাতুন ট্রাষ্টের মেধা বৃত্তি পরীক্ষায় প্রথম স্থান অর্জন করেছে তাওহিদা কলকলিয়া ইউনিয়ন আ.লীগের সম্মেলনে পরিকল্পনামন্ত্রী- তোমাদের স্বপ্নের বাংলাদেশ আসছে জগন্নাথপুরে আমার বিদ‌্যালয়, আমার অহংকার, নিজেরাই করি সুন্দর ও পরিস্কার প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে বন্ধুকে নিয়ে বেড়াতে গিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কায় মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় দুই বন্ধু নিহত ছাতকে একই স্থানে আ.লীগের দুই পক্ষের সমাবেশ,১৪৪ ধারা জারি আজ কলকলিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সন্মেলন ভারমুক্ত না নতুন নেতৃত্ব? কাশফুলের শাদা যন্ত্রণা ||আব্দুল মতিন জগন্নাথপুরের মিরপুরে ডাকাত আতঙ্ক, রাত জেগে দলবেঁধে পাহারা চলছে কলকলিয়া ইউনিয়ন আ.লীগের সম্মেলনে রোববার পরিকল্পনামন্ত্রী প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন ৫ বছর পর কাল কলকলিয়া ইউনিয়ন আ.লীগের সম্মেলন: বিতর্কিত নেতৃত্ব চান না নেতাকর্মীরা

বাংলা‌দে‌শের শেষ ম্যা‌চে হতাশাজনক প‌রিণ‌তি

Reporter Name
  • Update Time : শনিবার, ২৬ মার্চ, ২০১৬
  • ৫৬ Time View

হঠাৎ বিদ্যুৎ বিপর্যয়ে নিভে গিয়েছিল ইডেনের একটি ফ্লাড লাইট টাওয়ারের সব বাতি। তবে বাংলাদেশের ইনিংস অন্ধকারে নিমজ্জিত এর আগেই। আত্মহত্যার মিছিলে সামিল একের পর এক ব্যাটসম্যান। টি-টোয়েন্টিতে বাংলাদেশ গুটিয়ে গেল নিজেদের সর্বনিম্ন রানে; বিশ্বকাপ অভিযান শেষ হলো বাজে হারের হতাশায়।
টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিজেদের শেষ ম্যাচে কলকাতায় নিউ জিল্যান্ডের কাছে ৭৫ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৪৫ রান তুলেছিল নিউ জিল্যান্ড। ১৫.৪ ওভারে ৭০ রানেই গুটিয়ে গেল মাশরাফির দল। রেকর্ড গড়া ৫ উইকেটের পরও মুস্তাফিজুর রহমানকে থাকতে হলো বিজিত দলে।

টি-টোয়েন্টিতে এটিই বাংলাদেশের সর্বনিম্ন স্কোর। আগের সবচেয়ে কম রানও ছিল নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে, ২০১০ সালে হ্যামিল্টনে।
বাংলাদেশের জন্য এই ম্যাচে হারানোর ছিল না কিছু। কিন্তু দল হারিয়ে ফেলল যেন উদ্যমটাই। শরীরী ভাষায় দেখা গেল না দারুণ কিছুর তাড়না।

মন্থর ও নিচু বাউন্সের উইকেটে বাংলাদেশের বোলিং ছিল মিশ্র। মুস্তাফিজের জন্য উইকেট ছিল আদর্শ। একটু গ্রিপ করেছে বল, ব্যাটে এসেছে থেমে। তরুণ বাঁহাতি পেসার মেলে ধরেছিলেন নিজের জাদুর পসরা। স্লোয়ার, কাটার আর গতি-বৈচিত্রে খাবি খাওয়ালেন কিউই ব্যাটসম্যানদের।

খারাপ করেননি মাশরাফি-আল আমিনও। কিন্তু স্পিনাররা ছিলেন বিবর্ণ। ফিল্ডিংও হলো ভালো-মন্দ মিশিয়ে। তবে ব্যাটিং ব্যর্থতা পরে ছাপিয়ে গেছে সব কিছুকেই।

শুরুতেই ধাক্কা হয়ে এসেছিল তামিম ইকবালের রান আউট। দ্বিতীয় উইকেটে সাব্বির রহমান ও মোহাম্মদ মিঠুন চেষ্টা করছিলেন ঘুরে দাঁড়াতে। মিচেল ম্যাকক্লেনাগানকে তেড়েফুড়ে মারতে গিয়ে মিঠুনের বিদায়ে ভাঙল ২৫ রানের জুটি। তখন কে ভাবতে পেরেছিল, এটিই হয়ে থাকবে ইনিংসের সবচেয়ে বড় জুটি।

এরপর আর দু অঙ্কের জুটিই হয়েছে একটি। মিঠুনের দেখানো পথে একের পর এক ব্যাটসম্যান ফিরেছেন উইকেট বিলিয়ে। ছিল না টিকে থাকার তাড়না, লড়াই করার প্রয়াস।

উইকেট বুঝে ভালো বোলিং করেছেন স্লো মিডিয়াম পেসার গ্রান্ট এলিয়ট ও লেগ স্পিনার ইশ সোধি। তবে বোলিং ফিগার যেমন বোঝাচ্ছে, মোটেও তেমন ভয়ঙ্কর ছিলেন না দুজন। বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরাই উদার হাতে তুলে দিয়ে এসেছেন নিজেদের প্রাণ। দুই অঙ্ক ছুঁতে পারলেন মাত্র দুজন।

অথচ ব্যাটসম্যানরা উজ্জীবিত হতে পারতেন মুস্তাফিজের পারফরম্যান্সে। টি-টোয়েন্টিতে আগে কখনোই ম্যাচে ২ উইকেটের বেশি পাননি। এবার নিলেন ২২ রানে ৫ উইকেট, টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে বাংলাদেশের দ্বিতীয় সেরা বোলিং। যে কোনো বিশ্বকাপেই বাংলাদেশের প্রথম ৫ উইকেট।

মার্টিন গাপটিলকে বিশ্রাম নিয়ে অভিষিক্ত হেনরি নিকোলসকে ওপেনিংয়ে নামায় নিউ জিল্যান্ড। বাঁহাতি প্রতিভাবান ব্যাটসম্যান অবশ্য ডানা মেলতে পারেননি।

তবে আরেক পাশে কেন উইলিয়ামসন ছিলেন নিজের সৌন্দর্যময় সেরায়। দারুণ টাইমিং, নিখুঁত প্লেসমেন্টে খেলেছেন চোখ জুড়ানো কিছু শট। মাশরাফির করা প্রথম ওভারে দৃষ্টিনন্দন দুটি ড্রাইভে চার যেমন। সাকিবকে ইনসাইড আউটে চার, কিংবা ডাউন দ্য উইকেটে যে ছক্কা মারলেন, বল যেন টেরও পায়নি ব্যাটের আঘাত। আলতো করে সেফ্র ভাসিয়ে দিয়েছেন হাওয়ায়!

দুই ওপেনারকেই ফিরিয়েছেন মুস্তাফিজ। দারুণ এক স্লোয়ার-কাটারে বিভ্রান্ত হয়েছেন নিকোলস, বল এতটা ভেতরে ঢুকেছে যেন কোনো বাঁহাতি অর্থোডক্স স্পিনারের দারুণ টার্নিং বল!

দারুণ খেলতে থাকা উইলিয়ামসনও পেরে ওঠেননি মুস্তাফিজের প্রত্যুৎপন্নমতিত্বে। শাফল করে এলোমেলো করে দিতে চেয়েছিলেন বোলারকে। কিন্তু দারুণ এক স্লোয়ারে বোকা বানিয়েছেন কিউই অধিনায়ককে। নাড়িয়ে দিয়েছেন স্টাম্প (৩২ বলে ৪২)।

পরের বলেই আউট হতে পারতেন কলিন মানরো। সাকিবের বলে এলবিডব্লিউয়ের আবেদনে কেন যে সাড়া দিলেন না দক্ষিণ আফ্রিকার আম্পায়ার ইয়োহান ক্লোয়েটে, সেটি একমাত্র তিনিই বলতে পারবেন। টিভি রিপ্লে দেখাল বল লাগল মিডল স্টাম্পের মাঝে! রান ছিল তখন তার ১২ বলে ৮।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24