বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯, ০১:০০ পূর্বাহ্ন

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির সুনামগঞ্জ জেলা সভাপতি হারুন রশীদ সাধারণ সম্পাদক প্রনব দাস

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮
  • ৪৪ Time View

স্টাফ রিপোর্টার
অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান বলেছেন, ‘প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বেতনভাতাসহ সকল বৈষম্য দূর করা হবে। দেশের সকল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়কে পর্যায়ক্রমে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত করা হবে। ইতোমধ্যে কাজ শুরু হয়েছে। আগামী সরকারের আমলে বাস্তবায়ন করা হবে। তবে শিক্ষকদের বিভেদ দূর করে ঐক্যের সাথে শিক্ষিত জাতি গঠনে কাজ করতে হবে। শিশুদের বই পড়ানোর পাশাপাশি মনের দরজা খোলে দিতে হবে। তাদের মধ্যে একুশ শতকের বার্তা দিতে হবে। আগামী প্রজন্মকে অসাম্প্রদায়িক চেতনায় ও নৈতিক শিক্ষায় শিক্ষিত করে গড়তে হবে। তাহলেই নতুন প্রজন্ম মুক্তিযুদ্ধ ও অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বেড়ে উঠে জাতিকে শিক্ষিত হিসেবে গড়ে তোলবে। ’
প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান আরও বলেন,‘আমরা বহির্বিশ্বে একসময় নিরক্ষর জাতি হিসেবে পরিচিত ছিলাম। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান রহমান দেশ স্বাধীনের পরপরই ৩৭ হাজার প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারি ও প্রাথমিক শিক্ষাকে বাধ্যতামূলক করেছিলেন। তিনি চেয়েছিলেন বাঙালি জাতি শিক্ষিত হবে। বাংলাদেশ হবে স্বপ্নের সোনার বাংলা। বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য সন্তান প্রধানমন্ত্রী সেই স্বপ্ন বাস্তবায়ন করছেন। তিনি প্রাথমিক শিক্ষাসহ সকল ক্ষেত্রে বৈষম্য দূরিকরণে কাজ করছেন। তিনি সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়কে সরকারিকরণ করেছেন। তিনি বাঙালি জাতির উন্নয়নে জাতীয় ঐক্য করতে চান। কিন্তু একটি পরাজিত ও বিভ্রান্ত গোষ্ঠী জাতীয় ঐক্যে বার বার বাধা সৃষ্টি করছে। জাতির ক্রান্তিকালে জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলতে হবে। ১৯৭১ সালের মহান ঐক্যের ন্যায় দেশবাসীকে উন্নয়নের স্বার্থে ঐক্য গড়তে হবে। আমরা উন্নয়নের ধারবাহিকতা রক্ষা করতে চাই। আগামী সরকারের আমলে আমরা সুনামগঞ্জে মেডিকেল কলেজ-হাসপাতাল, একটি বিশ্ববিদ্যালয়, ছাতক-সুনামগঞ্জ, সুনামগঞ্জ-মোহনগঞ্জ রেললাইন নির্মাণ করতে চাই। আমরা আশা করি অতীতের ন্যায় সুনামগঞ্জবাসী জননেত্রী শেখ হাসিনার সাথে থাকবেন। ’
মঙ্গলবার বিকালে বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির সুনামগঞ্জ জেলা শাখার দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।
শিক্ষক সমিতির দাবির প্রেক্ষিতে তিনি বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতি সুনামগঞ্জ জেলা শাখার কার্যালয়ের জন্য একটি ঘর তৈরি করার প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিবেন বলে আশ্বাস দেন। আগামী মাসে সুনামগঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হবে বলে জানান।
শহরের শহীদ আবুল হোসেন মিলনায়তনে শিক্ষকদের সম্মেলনে অনুষ্ঠিত হয়। সম্মেলনের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সংগঠনের জেলা শাখার সদস্যসচিব গোলাম সরোয়ার লিটন।
সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির জেলা শাখার আহবায়ক হারুনুর রশিদের সভাপতিত্বে ও শিক্ষক বিপ্লব চন্দ্র দাসের পরিচালনায় সম্মেলনে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম. এনামুল কবির ইমন।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ব্যারিস্টার ইমন বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার প্রাথমিক শিক্ষার উন্নয়নে কাজ করছে। শিক্ষকদের দাবি মেনে নিয়ে সকল প্রাথমিক বিদ্যালয় সরকারিকরণ করেছেন। আওয়ামী লীগকে পুনরায় ক্ষমতায় আনতে শিক্ষকদের ভুমিকা পালন করতে হবে। ’
তিনি আরও বলেন,‘ লাঙল বার বার সদর আসনে খুঁড়ে দিচ্ছে, তা আর হতে দেয়া যায় না। আগামী নির্বাচনে সদর আসনে নৌকা থাকবে। আগামী নির্বাচনে আমি নৌকা প্রতীকে সদর আসনে নির্বাচন করব ও সকলের দোয়া-ভালবাসায় বিজয়ী হব।’
বিশেষ অতিথি হিসেবে সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন, পুলিশ সুপার মো. বরকতুল্লাহ খান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. হারুন অর রশিদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. নুরুজ্জামান, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা পঞ্চানন বালা, সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণ তাতীলীগের সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম সোহেল, কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি সামছুদ্দিন মাসুদ।
সম্মেলন শেষে কাউন্সিলের মাধ্যমে হারুন রশীদকে সভাপতি ও প্রণব দাস মিঠুকে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়। পরবর্তীতে পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হবে বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24