রবিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২০, ১১:৪০ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরের লহরী গ্রামে শীতবস্ত্র বিতরণ আদালতের আদেশে জগন্নাথপুরের বিএন উচ্চ বিদ্যালয়ের শতবর্ষ উৎসব আবারো স্থগিত মিরপুরে বর্নিল সাজে দুইদিন ব্যাপি প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠান সম্পন্ন মৌলভীবাজারে স্ত্রী-মাসহ ৪ জনকে হত্যার পর আত্মহত্যা জগন্নাথপুরে ইউনিয়ন আ,লীগের সম্মেলন সফল করার লক্ষে প্রস্তুতিসভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ডাক্তার-নার্সের অবহেলায় শিশুর মৃত্যুের অভিযোগে তদন্ত কমিটি গঠন মুঠোফোনে প্রেমের ফাঁদে ফেলে কিশোরগঞ্জের তরুণী কে জগন্নাথপুর এনে ধর্ষণ নান্দনিক আয়োজনে ঐতিহ্যবাহি মিরপুরের উচ্চ বিদ্যালয়ে সাবেক শিক্ষার্থীদের মিলনমেলায় বাঁধাভাঙা উচ্ছ্বাস জগন্নাথপুরে জুয়াড়িসহ গ্রেফতার-১৩ কুকুরের সঙ্গে সেলফি, অতঃপর মুখে ৪০ সেলাই

আজ আয়কর মেলার উদ্বোধন করবেন এমএ মান্নান

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ১ নভেম্বর, ২০১৭
  • ১২৭ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম ডেস্ক ::সুখী স্বদেশ গড়তে ভাই আয়করের বিকল্প নাই’ স্লোগান নিয়ে আজ ১ নভেম্বর থেকে শুরু হচ্ছে আয়কর মেলা। ব্যক্তি শ্রেণির করদাতাদের কর দিতে উৎসাহী করতে প্রতিবারের মতো এবারও এই মেলার আয়োজন করছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড -এনবিআর। সপ্তাহব্যাপী এ মেলা রাজধানী ঢাকা, বিভাগীয় শহর, জেলা ও উপজেলা শহরে অনুষ্ঠিত হবে। ঢাকায় রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্মাণাধীন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) নিজস্ব ভবনে আয়কর মেলা অনুষ্ঠিত হবে। অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নান এ মেলা উদ্বোধন করবেন।
গত বছর থেকে আয়কর মেলা নভেম্বরের প্রথম সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আগে সেপ্টেম্বর মাসে এই মেলা অনুষ্ঠিত হত।
আট বিভাগীয় শহরে সাত দিন হলেও জেলা পর্যায়ে মেলা হবে চার দিন; ১ থেকে ৭ নভেম্বরের মধ্যে। এ ছাড়া ৩২টি উপজেলায় মেলা হবে দুই দিন। ৭১ উপজেলায় একদিন ভ্রাম্যমাণ মেলা অনুষ্ঠিত হবে। ২০১০ সাল থেকে আয়কর মেলা আয়োজন করছে এনবিআর।
এতদিন আয়কর মেলা হয়েছে সেপ্টেম্বর মাসে। ১৫ সেপ্টেম্বর জাতীয় আয়কর
দিবস উপলক্ষে এ মেলার আয়োজন করে আসছিল এনবিআর।
গত অর্থবছরের (২০১৬-১৭) বাজেটে এই তারিখ পরিবর্তন করে ৩০ নভেম্বর আয়কর দিবস পালনের সিদ্ধান্ত হয়েছে। সেজন্য নভেম্বর মাসে আয়কর মেলা আয়োজন করা হচ্ছে।
প্রথম দিকে শুধু ঢাকায় করা হলেও করদাতাদের সাড়া পাওয়ায় দেশের অন্যান্য স্থানে এ মেলার পরিসর বাড়িয়েছে এনবিআর। সেই ধারাবাহিকতায় এখন উপজেলা পর্যায়েও আয়কর মেলা আয়োজন করা হচ্ছে।
বরাবরের মতো এবারও মেলায় করদাতাদের সব ধরনের তথ্য সেবা দেওয়া হবে। থাকবে ই-টিআইএন রেজিস্ট্রেশন ব্যবস্থা, রিটার্ন দাখিল করা, ই-পেমেন্ট কর পরিশোধ ইত্যাদি।
এবারও বয়স্ক নাগরিক, প্রতিবন্ধী ও যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য আলাদা বুথ থাকবে।
কর পরিশোধের জন্য মেলায় থাকবে বিভিন্ন বাণিজ্যিক ব্যাংকের বুথ। এ ছাড়া আয়কর দিবস উপলক্ষে এবারও সেরা করদাতাদের পুরস্কৃত করা হবে।
দেশে বর্তমানে কর শনাক্তকরণ নম্বরধারী (টিআইএন) নাগরিকের সংখ্যা ৩০ লাখের মতো। গত অর্থবছরে ১২ লাখের কিছু বেশি করদাতা রিটার্ন দাখিল করেছিলেন।
বেসরকারি চাকরিজীবীদের রিটার্ন বাধ্যতামূলক
এবারই প্রথম বেসরকারি চাকরিজীবীদের রিটার্ন জমা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। করযোগ্য আয় না থাকলেও সব কর্মীকে রিটার্ন জমা দিতে হবে। তা না হলে ওই চাকরিজীবী যে প্রতিষ্ঠানে কাজ করেন, ওই প্রতিষ্ঠান তাকে দেওয়া বেতন-ভাতাদি খরচ হিসেবে দেখাতে পারবেন না। আবার সরকারি কিংবা সরকারি স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে কর্মরত কোনো চাকরিজীবীর বেতন-ভাতা ১৬ হাজার টাকার বেশি হলে তাদেরও বাধ্যতামূলক রিটার্ন জমা দিতে হবে। মূলত করজাল বাড়ানোর লক্ষ্যে এ উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে জানান আব্দুর রাজ্জাক।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24