রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০২:০৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে ৩৯টি মন্ডপে দুর্গাপূজার প্রস্তুতি,চলছে প্রতিমা তৈরীর কাজ জগন্নাথপুর মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের কমিটির বিরুদ্ধে অপপ্রচারে প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা জগন্নাথপুরে ৬ মাসেও বকেয়া টাকা মিলেনি, ঋণের চাপে দিশেহারা পিআইসিরা বেড়াতে গিয়ে বাড়ি ফেরার পথে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় প্রাণ গেল জগন্নাথপুরের এক যুবকের মাথায় ৪ ইঞ্চি লম্বা শিং এই বৃদ্ধের! চাঁদাবাজির অভিযোগ দুই যুবলীগ নেতা গ্রেফতার দিরাইয়ে বিদেশীসহ গ্রেফতার-২ জগন্নাথপুর উপজেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের নতুন কমিটি গঠন সংর্ঘষে নিহত ২,দ. সুনামগঞ্জর হরিপুর এখন পুরুষ শূণ্য

উচ্চ শিক্ষা প্রসারে সরকার কাজ করছে-প্রধানমন্ত্রী

Reporter Name
  • Update Time : বুধবার, ২২ মার্চ, ২০১৭
  • ৪২ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডটকম ডেস্ক :: আইনের যথাযথ প্রয়োগ ঘটিয়ে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে মানসম্পন্ন শিক্ষা নিশ্চিতের ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, তার সরকার দেশের উচ্চশিক্ষার প্রসারে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বুধবার তার তেজগাঁও কার্যালয়ে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) প্রদত্ত ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক-২০১৩ ও ২০১৪’ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ সব কথা বলেন। খবর বাসসের

শেখ হাসিনা বলেন, “ইতোমধ্যে আমরা ‘বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আইন-২০১০’ করে দিয়েছি, এই আইন যাতে যথাযথ প্রয়োগ হয় সে দিকে সকলের নজর দিতে হবে।’

তিনি বলেন, “সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে উচ্চশিক্ষার মান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে যথাযথ মনিটরিং করতে ‘বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন আইন-১৯৭৩’ সংশোধন করার কাজ চলছে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আসলে মঞ্জুরি কমিশন যে অবস্থায় আছে তা দিয়ে ১৩৭টি বিশ্ববিদ্যালয়কে নজরদারিতে রাখা সম্ভব নয়।’

প্রধানমন্ত্রী অনুষ্ঠানে ইউজিসি চেয়ারম্যানের বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে বলেন, ‘এটা ঠিক আমাদের মঞ্জুরি কমিশনের চেয়ারম্যান বলেছেন, আমাদের সরকারি-বেসরকারি মিলে এতোবেশি বিশ্ববিদ্যালয় হয়ে গেছে সেগুলো নজরদারি করা সত্যিই খুব কষ্টকর। এতে কোন সন্দেহ নেই। দেশে ৯৫টি বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে এবং সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংখ্যা হচ্ছে ৪২টি।’

তিনি বলেন, ‘কাজেই ‘৭৩ সালের মঞ্জুরি কমিশন আইন যেটা সংশোধনের একটি প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে সেটার যথাযথভাবে কাজ হচ্ছে। আমার মনে হয়, এটা করে দিতে হবে। না করলে পরে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে কি পড়াশোনা হচ্ছে, কি চলছে—এগুলো ভালোভাবে নজরদারি করা যাবে না। আমরা এই আইনটা সংশোধন করে দেব। এতে আর কোন সন্দেহ নেই।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘এডুকেশন কাউন্সিলও আমরা করে দিয়েছি। এ ধরনের বিভিন্ন পদক্ষেপ আমরা ইতোমধ্যে নিয়েছ—আমাদের লক্ষ্যটা হচ্ছে দেশের উচ্চশিক্ষার মানোন্নয়ন। এজন্যে ‘উচ্চশিক্ষার মানোন্নয়ন প্রকল্প (এইচইকিউইপি)’ এটাও আমরা বাস্তবায়ন করে দিয়েছি।’

ইউজিসি চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। ইউজিসির সদস্য অধ্যাপক দিল আফরোজা বেগম অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন।

এ ছাড়া ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক’ প্রাপ্তদের পক্ষ থেকে জেনিফার হাকিম লুপিন ও স্বজন রহমান তাদের অনুভূতি ব্যক্ত করেন।

অনুষ্ঠানে দেশের সব পাবলিক ও প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অনুষদে শীর্ষস্থান অধিকার করা কৃতী ২৩৩ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ইউজিসি প্রদত্ত ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক’ ও সনদপত্র বিতরণ করা হয়। প্রধানমন্ত্রী অনুষ্ঠানে ৫৬ জনের হাতে পদক তুলে দেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24