শনিবার, ২৪ অগাস্ট ২০১৯, ০৪:৪২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
ঠিকাদারের দায়িত্বহীনতায় জগন্নাথপুর-বেগমপুর সড়কে অসহনীয় দুর্ভোগ জগন্নাথপুরের টমটম চালকের হত্যাকাণ্ড উন্মোচিত,ঘাতকের স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি প্রদান জগন্নাথপুরে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনায় জন্মাষ্টমী উদযাপন জগন্নাথপুরে সরকারি গাছ কাটায় সেই যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের ভারত-পাকিস্তান গুলি বিনিময় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী পরীক্ষা ১৭ নভেম্বর টমটম গাড়ীর জন্য জগন্নাথপুরের এক চালককে রশিদপুরে নিয়ে খুন,গ্রেফতার-১ জেলা আ.লীগের গণমিছিল ৫ বছরেও শেষ হয়নি জগন্নাথপুরের ভবেরবাজার-গোয়ালাবাজার সড়কের কাজ,দুর্ভোগ লাখো মানুষের “জুম্মু কাশ্মীরে,গণতহ্যা শুরু করেছে মোদী সরকার”

১০ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগে এএসআই ক্লোজড

Reporter Name
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২ জানুয়ারী, ২০১৮
  • ৩৪ Time View

জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর ডেস্ক :: যশোরের ঝিকরগাছায় দশ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগে শাহ আলম নামে যশোর কোতয়ালী থানার এক সহকারী উপ-পরিদর্শককে (এএসআই) পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়েছে। আটক করা হয়েছে পুলিশ কনস্টেবল কাজী জহিরুল হক এবং পুলিশ সোর্স চাঁচড়া ডালমিল এলাকার জাহাঙ্গীর সরকারের ছেলে জীবন সরকারকে। আর ঘটনাটি ঘটেছে ঝিকরগাছার বেনেয়ালি এলাকার একটি তেল পাম্পের কাছে।
ঝিকরগাছা থানার ওসি আবু সালেহ মাসুদ করিম জানান, বেনাপোলের রোশা এন্টাপ্রাইজ নামে একটি প্রতিষ্ঠানের দশ লাখ টাকা ছিনতাই হয়। এই ঘটনায় দুইজনকে আটক করা হয়েছে।
আটকদের মধ্যে কোনো পুলিশ সদস্য আছে কি-না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমি কাউকে চিনি না। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।’
আর কোতয়ালী থানায় ওসি একেএম আজমল হুদা জানিয়েছেন, ‘প্রশাসনিক কারণে’ তার থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক শাহ আলমকে ক্লোজ করা হয়েছে।
এর বেশি কিছু জানাতে অস্বীকৃতি জানান তিনি।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সোমবার দুপুর দেড়টার দিকে ঝিকরগাছার বেনেয়ালী এলাকার একটি তেলপাম্পের কাছে সাদা পোশাকে পুলিশ পরিচয়ে ছয় ব্যক্তি বেনাপোলের দিক থেকে আসা একটি পিকআপ ভ্যান থামিয়ে তল্লাশী শুরু করেন। তারা ওই পিকআপ থেকে ব্যাগ ভর্তি ৩০ লাখ টাকা জোর করে ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেন। সে সময় পিকআপ আরোহী আর ওই ছয় ব্যক্তির মধ্যে বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে সাদা পোশাকধারীদের ঘিরে ফেলে। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে তিন জন টাকার একটি ব্যাগ নিয়ে মোটরসাইকেলযোগে দ্রুত ঝিকরগাছার দিকে পালিয়ে যান। বাকি তিনজনকে স্থানীয়রা আটক করে ঝিকরগাছা থানা পুলিশের হাতে তুলে দেন। ঘটনার সময় পালিয়ে যাওয়া এক ব্যক্তি তার গায়ের জ্যাকেটটি হাজেরালি মহিলা কলেজ মোড় এলাকায় ফেলে দেন।
সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, আটক তিনজনের মধ্যে একজন ছিলেন কোতয়ালী থানার এএসআই শাহ আলম। পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়।
ঝিকরগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবু সালেহ মাসুদ করিমের কাছে আটককারীদের পরিচয় জানতে চাইলে তিনি প্রথমে অস্বীকার করেন। পরে দুইজনের আটকের কথা স্বীকার করেন।
ঘটনার ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে জানিয়ে মামলা হলে এসআই মনিরের কাছ থেকে বিস্তারিত জেনে নেয়ার পরামর্শ দেন ওসি।
এসআই মনির স্থানীয় সাংবাদিকদের এ সম্পর্কে তথ্য দিতে নানা টালবাহানা ও সময়ক্ষেপণ করেন। পরে তাকে ফোন করা হলে তিনি রিসিভ করেননি।
ঘটনার সময় আটক ব্যক্তিরা ডিবি পুলিশ সদস্য বলে অনেকে সন্দেহ করেন। কিন্তু ডিবি পুলিশের কোনো সদস্য আটক হননি বলে নিশ্চিত করেন ওসি মনিরুজ্জামান।
পুলিশের একটি সূত্রের দাবি, বেনাপোলের একটি সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট হুন্ডির ৩০ লাখ টাকা পাচার করছিল। এই সংবাদ পান কোতয়ালী থানার এএসআই শাহ আলমসহ অন্যরা। তারা যশোর-বেনাপোল সড়কের ঝিকরগাছার বেনেয়ালিতে অবস্থান নিয়ে ওই টাকা ছিনতাইয়ের পরিকল্পনা করেন।
সূত্রের দাবি, ৩০ লাখের মধ্যে ২০ লাখ টাকা স্থানীয় জনগণ আটকাতে পারলেও অবশিষ্ট টাকা নিয়ে পালিয়ে যান তিন ছিনতাইকারী।
এই ঘটনায় আটক ব্যক্তিরা হলেন গোপালগঞ্জ জেলার কাশিয়ানী উপজেলার ফড়কি গ্রামের আব্দুস সালামের ছেলে ও যশোর কোতয়ালী থানার কনস্টেবল কাজী জহুরুল হক ও পুলিশের সোর্স যশোর শহরের চাঁচড়া ডালমিল এলাকার জাহাঙ্গীর সরকারের ছেলে জীবন সরকার।
পুলিশের অপর একটি সূত্রে জানা গেছে, এঘটনার দায়ের করা মামলায় যশোর কোতয়ালী থানার এএসআই শাহ আলমকে পলাতক দেখানো হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24