সোমবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৮:১৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
জগন্নাথপুরে আইনশৃংঙ্খলা সভায়-আনন্দ সরকারের হত্যাকারিদের গ্রেফতারের দাবি জগন্নাথপুরে নারী নির্যাতন প্রতিরোধ ও বেগম রোকেয়া দিবস পালন, ৫ জয়িতাকে সম্মাননা প্রদান জগন্নাথপুরে দুর্নীতি বিরোধী দিবসে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত ১৭ ডিসেম্বর থেকে হাওরের বাঁধ নির্মাণ কাজ শুরু লজ্জা শুধু নারীরই নয়, পুরুষেরও ভূষণ জগন্নাথপুর মুক্ত দিবস আজ ডাকাত আতঙ্কে আজও নিদ্রাহীন মিরপুর ইউনিয়নবাসি, চলছে পাহারা জগন্নাথপুরে হালিমা খাতুন ট্রাষ্টের মেধা বৃত্তি পরীক্ষায় প্রথম স্থান অর্জন করেছে তাওহিদা কলকলিয়া ইউনিয়ন আ.লীগের সম্মেলনে পরিকল্পনামন্ত্রী- তোমাদের স্বপ্নের বাংলাদেশ আসছে জগন্নাথপুরে আমার বিদ‌্যালয়, আমার অহংকার, নিজেরাই করি সুন্দর ও পরিস্কার প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত

`মাদকাসক্ত চালক বা হেলপারের হাতে গাড়ি তুলে দেবেন না’

জগন্নাথপুর২৪ ডেস্ক::
  • Update Time : শনিবার, ২৫ মে, ২০১৯
  • ১৫০ Time View

মাদকাসক্ত কোনো চালক ও হেলপারের হাতে গাড়ি তুলে না দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া। তিনি বলেন, মাদকাসক্ত কোনো লোক গাড়ির হেলপার বা চালক হতে পারবেন না। মাদকের কারণে অনেক বড় বড় দুর্ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে পরিবহন মালিক শ্রমিককে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। মাদকাসক্ত কোনো চালক বা হেলপারের হাতে গাড়ি তুলে দেবেন না। কোনো চালক বা হেলপারকে দেখার পর যদি আপনাদের মনে হয়, তিনি মাদকাসক্ত তাহলে তাকে ডোপ টেস্ট করান। এ বিষয়ে আমরা সার্বিক সহযোগিতা করবো।

শনিবার রাজধানীর মহাখালী আন্তঃজেলা বাস টার্মিনালে ঈদুল ফিতর উপলক্ষে আয়োজিত ‘ট্রাফিক সচেতনতা’ আলোচনা সভায় বাস মালিকদের উদ্দেশে তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় নির্ধারিত ভাড়ার বেশি আদায় করলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি জানিয়ে ডিএমপির কমিশনার বলেন, সরকারের পক্ষ থেকে যে ভাড়া নির্ধারিত করে দেওয়া হয়েছে, এর বেশি যাত্রীদের কাছ থেকে নেওয়া যাবে না। আর যদি কেউ এটি অমান্য করেন তাহলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না।

একইসঙ্গে ঈদযাত্রায় ভোগান্তি কমাতে ঢাকায় প্রবেশ ও বাইরের সড়কগুলো খোলা রাখাতে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দিয়ে কমিশনার আরো বলেন, ঈদযাত্রার সময় রাজধানীর যেসব পয়েন্ট হয়ে গাড়ি বের হয় ও প্রবেশ করে সেগুলো ফাঁকা ও যানজটমুক্ত রাখতে হবে। তাহলে গাড়ি খুব দ্রুত যাত্রী নিয়ে প্রবেশও করতে পারবে সঙ্গে বেরও হতে পারবে। এতে করে ঈদ যাত্রার ভোগান্তি অনেকাংশে কমে আসবে।

এ ছাড়াও টার্মিনালগুলোতে অজ্ঞান পার্টির সদস্যদের সক্রিয়তা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, রমজানের ১৯ দিনে রাজধানীতে কোনো ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেনি। আমরা দিন-রাত কাজ করে যাচ্ছি। মানুষ নিরাপত্তার সঙ্গে গভীর রাত পর্যন্ত ঈদ কেনাকাটা করে নিরাপদে বাড়ি ফিরছে। কারণ আমরা প্রয়োজনীয় নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়েছি। তবে সামনের দিনগুলোতে বিভিন্ন টার্মিনালে হকারের বেশে অজ্ঞান পার্টির লোকজন ঢুকতে পারে। তাদের বিষয়ে আমরাও সতর্ক রয়েছি। কিন্তু যাত্রী এবং পরিবহন কর্তৃপক্ষকেও এ বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর
জগন্নাথপুর টুয়েন্টিফোর কর্তৃপক্ষ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ২০১৯
Theme Dwonload From ThemesBazar.Com
themebasjagannathpur24